২৭ আগস্ট জুনিয়র সায়েন্স অলিম্পিয়াড এবং ২৩-২৪ সেপ্টেম্বর শিশু-কিশোর বিজ্ঞান কংগ্রেস

আগামী ২৭ আগস্ট ঢাকার টিচার্স ট্রেনিং কলেজে অনুষ্ঠিত হবে ২য় বাংলাদেশ জুনিয়র সায়েন্স অলিম্পিয়াড (BdJSO)। এছাড়া ২৩ ও ২৪ সেপ্টেম্বর এশিয়া প্যাসিফিক বিশ্ববিদ্যালয়ে হবে ‘শিশু-কিশোর বিজ্ঞান কংগ্রেস ২০১৬’। বাংলাদেশ বিজ্ঞান জনপ্রিয়করণ সমিতি (এসপিএসবি) ও বাংলাদেশ ফ্রিডম ফাউন্ডেশনের (বিএফএফ) এ দুটি আয়োজনের উদ্যোক্তা। আজ (২০ আগস্ট ২০১৬) বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রে এক সংবাদ সম্মেলনে এ সংক্রান্ত বিস্তারিত জানান এসপিএসবির সভাপতি ও বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ অধ্যাপক মুহম্মদ জাফর ইকবাল।

সংবাদ সম্মেলনে মুহম্মদ জাফর ইকবাল বলেন,”গণিত অলিম্পিয়াডে আমাদের শিক্ষার্থীদের সাফল্যের পর আমরা এখন তাদের বিজ্ঞানের প্রতি আগ্রহী ও বিজ্ঞান গবেষণায় উৎসাহিত করার চেষ্টা করছি। সেজন্য বিগত কয়েক বছরে শিক্ষার্থীদের জন্য সায়েন্স অলিম্পিয়াড, চিলড্রেন সায়েন্স কংগ্রেস, সায়েন্স ল্যাব, বিজ্ঞান মেলা ইত্যাদির আয়োজন করা হচ্ছে। এই সকল আয়োজনে শিক্ষার্থীরাও তাদের মেধা ও মননের প্রকাশ ঘটাচ্ছে এবং তারা ক্রমাগত ভালও করছে।”

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, এবার নিয়ে বাংলাদেশের শিক্ষার্থীরা ২য় বারের মতো ইন্দোনেশিয়ায় অনুষ্ঠেয় আন্তর্জাতিক জুনিয়র সায়েন্স অলিম্পিয়াডে (আইজেএসও) অংশগ্রহণ করবে। আগামী ২৭ আগস্ট ঢাকার চিটার্স ট্রেনিং কলেজে ২য় বাংলাদেশ জুনিয়র সায়েন্স অলিম্পিয়াডের মাধ্যমে দল নির্বাচন প্রক্রিয়া শুরু হবে। পরবর্তী সময়ে ক্যাম্প ও সিলেকশন টেস্টের মাধ্যমে দল নির্বাচন করা হবে। দুইটি ক্যাটাগরিতে সারাদেশের প্রায় ৩০০ শিক্ষার্থী ২৭ আগস্টের অলিম্পিয়াডে অংশ নেবে বলে আয়োজকরা আশা প্রকাশ করেন। অংশ নিতে আগ্রহীরা www.spsb.org/bdjso16/ এই ঠিকানায় গিয়ে নিবন্ধন করতে পারবে। নিবন্ধনের জন্য ১০০ টাকা ফী রয়েছে। উল্লেখ্য যে, ২০১৫ সালে দক্ষিণ কোরিয়ায় হয়ে যাওয়া আন্তর্জাতিক জুনিয়র সায়েন্স অলিম্পিয়াডে ফারহান রওনক ব্রোঞ্জ পদক পেয়েছে।

অন্যদিকে দেশের বিজ্ঞান শিক্ষার্থীদের বিজ্ঞানের প্রতি অনুরাগী ও বিজ্ঞানের মূল রীতিনীতির ওপর দক্ষ করে তোলার লক্ষ্যে অনুষ্টিত হবে শিশু-কিশোর বিজ্ঞান কংগ্রেস। এতে তৃতীয় থেকে দ্বাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থীরা বৈজ্ঞানিক নিবন্ধ, পোস্টার ও প্রকল্পের মাধ্যমে নিজেদের উদ্ভাবন তুলে ধরবেন। পরবর্তী সময়ে কংগ্রেস থেকে নির্বাচিত ৪০ জন খুদে বিজ।ঞানীর জন্য জগদীশ চন্দ্র বসু বিজ্ঞান ক্যাম্পের আয়োজন করা হবে এবং নির্বাচিত প্রকল্পসমূহকে গুগল বিজ।ঞান মেলায় অংশগ্রহণের জন্য সহায়তা প্রদান করা হবে। বিজ্ঞান কংগ্রেসে অংশগ্রহণে ইচ্ছুকদের আগামী ১০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে তার পোস্টার/প্রকল্প/পেপারের ধারণাপত্র জমা দিতে হবে। বিজ্ঞান কংগ্রেসে অংশগ্রহণের জন্য কোন ফীর প্রয়োজন নেই। নিবন্ধন ও বিস্তারিত তথ্যের জন্য www.cscongress.net এই ওয়েবসাইটে যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে বিশিস্ট বিজ্ঞানী রেজাউর রহমান জানান, “নানাবিধ চেষ্টা ও আগ্রহের মাধ্যমে একজন শিক্ষার্থী সত্যিকারের বিজ্ঞানী-গবেষক হিসাবে গড়ে ওঠে। বিজ্ঞানী-গবেষক হওয়ার মূল শর্ত হলো কৌতুহলী হওয়া। এই ধরনের আয়োজনের মধ্য দিয়ে মিক্ষার্থীদের কৌতুহলকে ধরে রাখা যায়।”

বিএফএফ-এর নির্বাহী পরিচালক সাজ্জাদুর রহমান চৌধুরী বলেন, “তৃণমূল পর্যায়ে প্রায় ৪০০ বিজ্ঞান ক্লাবের কর্মকাণ্ড এবং বিজ্ঞান বিষয়ক নানান আয়োজনের কারনে গত ৫ বছরে মাধ্যমিক পর্যায়ে শিক্ষার্থীদের সংখ্যা শতকরা হসিাবে বৃদ্ধি পেয়ে প্রায় ২৮ শতাংশ হয়েছে। অথচ ২০১০ সালেও এই হার ছিল ২১%। তিনি আরও বলেন সারাদেশে বিজ্ঞান শিক্ষার প্রসার ঘটানোর জন্য সরকারি ও বেসরকারি আরো উদ্যোগ নেওয়া প্রয়োজন। ”

বিজ্ঞান বিষয়ক কর্মকাণ্ডের পৃষ্ঠপোষকতা প্রসঙ্গে মুহম্মদ জাফর ইকবাল বলেন, এই দেশে খুব সহজে কনসার্ট করার স্পন্সর পাওয়া যায় কিন্তু বিজ্ঞানের একটি অলিম্পিয়াড বা শিশু-কিশোরদের বিজ্ঞান কংগ্রেসের কোন স্পন্সর পাওয়া যায় না।

সংবাদ সম্মেলনে আরও বক্তব্য দেন ডোজ ইন্টারেনেটর প্রধান নির্বাহী জ্যোতি আগরওয়াল। উল্লেখ্য যে, ইন্টারনেট সেবা প্রদানকারী সংস্থা ডোজ, ডিজিটাল মার্কেটিং সংস্থা ক্রো-ল্যাব এবং অন্যরকম বিজ্ঞান বাক্স এই দুই আয়োজনে সহযোগিতা প্রদান করছে।

সিনিউজভয়েস/ডেক্স

Please Share This Post.