১ বছরে বাংলাদেশকে বদলানো সম্ভব

১ বছর কম সময় না, এই ১ বছরে বাংলাদেশকে বদলানো সম্ভব  এমন মক্তব্য করেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পা্ওয়া মন্ত্রী তথ্যপ্রযুক্তিবিদ মোস্তাফা জব্বার।

অ্যাসোসিয়েশন অব সফট্ওয়্যার এন্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস) মোস্তফা জব্বার মন্ত্রিত্ব পা্ওয়ায় ’আমরা গর্বিত’ শিরোনামে আনুষ্ঠানিক সম্বর্ধনার আয়োজন করেন।

মোস্তাফা জব্বার বলেন, সরকার আর ক্ষমতায় আছে ১ বছর, এই সময়ের মধ্যে সব কিছু করার সম্ভব না হল্ওে অনেক কিছু না সম্ভব।  দেশ ডিজিটাল হতে গেলে সরকারকে ইন্টারনেটের বিষয়ে জোড় দিতে হবে।  আর আমি তাই করবো ইন্টারনেটের দাম কমানো এবং তার গতি বাড়াবো।

তিনি বলেন, আমার মন্ত্রনালয়ে কোন বিদেশী প্রতিষ্ঠান এক তরফা কাজ করতে পারবে না।  আমি ইংরেজী বিরোধী না, তবে দেশের ৯৬ শতাংশ মানুষ ইংরেজী বুঝে না।  তাই স্থানীয় ভাষায় কনন্টেট দরকার।

মন্ত্রী বলেন, আমি রাজনীতি করে মন্ত্রী হয়নি।  তাই আমরা পিছনে সোগ্লান দেয়ার মানুষ নাই।  তবে আমার রয়েছে সারাদেশে প্রযুক্তিসৈনিক, আমার মত এত সৈনিক আর কোন মন্ত্রীর নাই।   টেলিকম সেন্টারে ক্যান্সারের মত সমস্যা, আমরা সে সমস্যা জানিও না এবং সমাধানের উদ্যো্গ্ও নেয় না।

সম্বর্ধনা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, দেশের সকল আইসিটি ব্যক্তিত্ব, বেসিসের সকল সভাপতি, সদস্য, এবং কার্য নির্বাহীর সকল সদস্য। এই সময় তিনি সবাইকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আমি আপনাদের জব্বার ভাইই থাকতে চাই।  আপনারা আমাকে জব্বার ভাই বলেন ডাকবেন।  আজ থেকে আপনাদের্ও দায়িত্ব বেড়ে গেল।  আমি যদি মন্ত্রিত্বে ফেল করি, এই ফেল করা শুধু আমার একার না।  এই ফেল করা আপনাদের সবাই।

মন্ত্রী আর বলেন, আমি সারাজীবন দেশকে ডিজিটাল করার লড়াই করেছি।  আজ মন্ত্রী হয়েছি বলে তা ভুলে যাবো না।  ১ বছরের মন্ত্রী জন্য ৬৯ বছরের কামানো সম্মান নষ্ট করবো না।

এই সম্বর্ধনা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন. বিভিন্ন প্রযুক্তি সংগঠনের সভাপতি।  বাংলাদেশে আইসিটি জানালিষ্ট ফোরাম ( বিআইজেএফ) এর সকল সাংবাদিকরা এই সময় উপস্থিত ছিলেন।

সিনিউজভয়েস//ডেস্ক/

Please Share This Post.