স্যামসাং সফটওয়্যার একাডেমিতে শেষ হয়েছে আইটি প্রশিক্ষণ

স্যামসাং বাংলাদেশের জুনিয়র সফটওয়্যার একাডেমিতে শেষ হয়েছে তৃতীয় ব্যাচের আইটি প্রশিক্ষণ। প্রতিষ্ঠানটি তাদের সামাজিক দায়বদ্ধতা কার্যক্রমের অংশ হিসেবে এই প্রশিক্ষণ পরিচালনা করে। শিক্ষার্থীরা স্যামসাংয়ের রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট (আরঅ্যান্ডডি) ইনস্টিটিউট থেকে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে এই প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেছেন।

জুনিয়র সফটওয়্যার একাডেমিতে আয়োজিত এই প্রশিক্ষণ কর্মশালায় অংশগ্রহণকারী ৬ষ্ঠ থেকে ১০ম শ্রেণির মোট ৩০জন সুবিধাবঞ্চিত শিক্ষার্থী নির্বাচনে স্যামসাং বাংলাদেশকে সহায়তা করেছে এডুকো নামের একটি স্বীকৃত অলাভজনক প্রতিষ্ঠান।

এই আয়োজনের মূল উদ্দেশ্য ছিলো, শিক্ষার্থীদের প্রযুক্তি জ্ঞান সহজতর করা যেনো তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ের ওপর তাদের আগ্রহ বৃদ্ধি পায়। অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীরা হাতে-কলমে কোডিং, প্রোগ্রামিং, মাইক্রোসফট অফিস, অ্যান্ড্রয়েড ওপেন সোর্স সিস্টেম, কম্পিউটার ও ইন্টারনেট সংক্রান্ত প্রাথমিক শিক্ষাসহ অন্যান্য আরো অনেক প্রযুক্তিগত বিষয়ে প্রশিক্ষণ লাভ করেছেন।

এছাড়া স্যামসাংয়ের ইতিহাসের পাশাপাশি স্যামসাং পণ্য সম্পর্কে জ্ঞান লাভ করেছেন শিক্ষার্থীরা। এর ফলে সফটওয়্যার ডেভেলপ করতে বেসিক কোডিং ব্যবহার করে শিক্ষার্থীরা তাদের শিক্ষার প্রতিফলন ঘটাতে পারবেন। প্রশিক্ষণ শেষে শিক্ষার্থীদের সার্টিফিকেট প্রদান করা হয়েছে।

স্যামসাং বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক স্যাংওয়ান ইয়ুন বলেন, প্রতিনিয়ত প্রযুক্তি দুনিয়ায় পরিবর্তন আসছে আর এই পরিবর্তনের সঙ্গে খাপ খাওয়ানোর মধ্য দিয়েই এ খাতে প্রকৃত উন্নয়ন নিহিত। আর প্রযুক্তির অগ্রযাত্রায় স্যামসাং প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করে, আর তা বিবেচনা করেই বাংলাদেশে জুনিয়র সফটওয়্যার একাডেমির প্রশিক্ষণ কার্যক্রমের আয়োজন করে আসছে স্যামসাং বাংলাদেশ। প্রশিক্ষণ থেকে অর্জন করা জ্ঞান ভবিষ্যতে শিক্ষাগ্রহণে শিক্ষার্থীদের সহায়তার পাশাপাশি তাদের মাঝে প্রযুক্তি ও উদ্ভাবনী ধারণা নিয়ে কাজ করার ইচ্ছাশক্তি তৈরি করবে।

 

-সিনিউজভয়েস/জিডিটি/১৭ডিসে./১৯

 

Please Share This Post.