সফটওয়্যার কোয়ালিটি টেস্টিং ল্যাব উদ্বোধন করেন জয়

সফটওয়্যার যাচাই ও গুণগত মান নির্ণয়ে আন্তর্জাতিক মানের সফটওয়্যার কোয়ালিটি টেস্টিং ও সার্টিফিকেশন সেন্টার উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে ডিজিটাল বাংলাদেশের আরেক ধাপ অগ্রগতি হল। প্রায় ৩১ কোটি টাকা ব্যয়ে আইসিটি বিভাগ এ তিনটি সেবা চালু করেছে।

বৃহস্পতিবার আগারগাঁওয়ে তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগে এই সেন্টার উদ্বোধন শেষে করে প্রধানমন্ত্রীপুত্র এবং প্রধানমন্ত্রীর তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়।

একইসঙ্গে ২০২১ সালের মধ্যে আইসিটি খাতে এক হাজার উদ্ভাবনী পণ্য ও সেবা তৈরিতে উদ্যোক্তাদের জন্য ‘অ্যাকসেলেরেটর’ এবং হ্যাকিং প্রতিরোধে ‘কম্পিউটার ইন্সিডেন্ট রেসপন্স টিম ল্যাব’ও উদ্বোধন করেন তিনি।

অনুষ্ঠানে জয় বলেন, আমি অত্যন্ত গর্বিত যে, আওয়ামী লীগ সরকারের উদ্যোগে আইসিটি ডিভিশনের মাধ্যমে এই তিনটি বিষয় আমরা উদ্বোধন করলাম। বাংলাদেশকে আরেক ধাপ আমরা এগিয়ে নিয়ে গেলাম ডিজিটাল বাংলাদেশে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ আগে কোনো সফটওয়্যার টেস্টিং ল্যাব ছিল না। বাইরে থেকে সফটওয়্যার টেস্টিং করে সার্টিফিকেট নিয়ে আসতে হত। সেটা সরকারি সফটওয়্যার বলেন, আর বেসরকারি সফটওয়্যার বলেন।
এখন আমরা বাংলাদেশেই আমাদের আইসিটি মিনিস্ট্রি থেকে করে দিতে পারি। এই ল্যাব এখন আছে। এই সার্টিফিকেশন অথরিটি এখন আছে।

সফটওয়্যার কোয়ালিটি টেস্টিং ও সার্টিফিকেশন সেন্টার স্থাপনের মাধ্যমে দেশের সরকারি পর্যায়ে তৈরি ও কেনা সফটওয়্যার, মোবাইল অ্যাপ, কম্পিউটার হার্ডওয়্যার ইত্যাদির মান পরীক্ষা করার সুযোগ সৃষ্টি হয়েছে।

আইসিটি বিভাগ জানিয়েছে, ইতোমধ্যে এ সেন্টারের মাধ্যমে তিনটি প্রতিষ্ঠানের সফটওয়্যারের মানের পরীক্ষা সফলভাবে সম্পন্ন করা হয়েছে। আরও চারটি প্রতিষ্ঠানের সফটওয়্যারের পরীক্ষা চলমান।

ভবিষ্যতে এ সেন্টারের মাধ্যমে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের সফটওয়্যারের মান পরীক্ষারও পরিকল্পনা রয়েছে আইসিটি বিভাগের।

অনুষ্ঠানে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের সচিব জুনেয়া আজিজ, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের নির্বাহী পরিচালক পার্থ প্রতিম দেবসহ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের আওতাধীন বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল এই স্টার্টআপ বাংলাদেশের অ্যাকসেলেটার ও ল্যাব স্থাপন করেছে। স্টার্টআপ বাংলাদেশ-আইডিয়া প্রকল্প এই অ্যাকসেলেরেটর বাস্তবায়ন করেছে, যা রাজধানীর আগারগাঁওয়ের আইসিটি টাওয়ারের ১৫ তলায় অবস্থিত।

সিনিউজভয়েস//ডেস্ক/

Please Share This Post.