শুরু হলো বিসিএস কম্পিউটার সিটির মেলা

 

রাজধানীর বিসিএস কম্পিউটর সিটিতে শুরু হয়েছে প্রযুক্তি পণ্যের মেলা ‘সিটিআইটি ২০১৬’। আগারগাঁওস্থ বিসিএস কম্পিউটার সিটিতে ১৮ জানুয়ারি থেকে শুরু হওয়া এ মেলা চলবে ২৪ জানুয়ারি পর্যন্ত।

মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। এ সময়ে তিনি বলেন, ‘এই মেলা জ্ঞান ও প্রযুক্তিভিত্তিক মেলা। এই মেলার মাধ্যমে দেশকে এগিয়ে নেয়া যাবে এটা আমার বিশ্বাস। এ ধরনের আয়োজন তরুণদেরকে অনেক দুর এগিয়ে নিতে সক্ষম হবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মোস্তফা জাব্বার। এবারের মেলার শ্লোগান ‘ডিজিটাল শিক্ষা শিশুদের অধিকার’ নির্ধারণ করায় তিনি আয়োজকদের প্রশংসা করেন। মেলার যে শ্লোগান নির্ধারণ করা হয়েছে তা বাস্তবায়ন করতে তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের প্রতি তিনি অনুরোধ জানান।

অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য দেন বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতির (বিসিএস) সভাপতি আহমেদ হাসান। তিনি বলেন, এ মেলায় আমরা শিশুদের ডিজিটাল শিক্ষা পাঠদানে গুরুত্ব দিচ্ছি। অনুষ্ঠানে সবাইকে ধন্যবাদ জানান সিটিআইটি মেলা ২০১৬’র সমন্বয়ক মুজিবুর রহমান স্বপন।

বিসিএস কম্পিউটার সিটির নিজস্ব আঙ্গিনায় প্রায় ২,০০,০০০ বর্গফুট জায়গায় শুরু হয়েছে এ মেলা। মেলায় তথ্যপ্রযুক্তির অতি পরিচিত ব্র্যান্ডের কম্পিউটার সামগ্রী, প্রায় ১৬৫টি স্থায়ী প্রতিষ্ঠানে প্রদর্শনসহ সুলভ মূল্যে মিলছে। এই সব পণ্য সামগ্রীর মধ্যে উল্লেখযোগ্য- কম্পিউটার হার্ডওয়্যার ও সফটওয়ার পণ্য সামগ্রী, নেটওয়ার্ক ডাটা কমিউনিকেশন পণ্য সামগ্রী, মাল্টিমিডিয়া আইসিটি শিক্ষা উপকরণ, ডিজিটাল জীবন ধারা ভিত্তিক সেবা ও পণ্য।

মেলায় বিশ্বের বিভিন্ন নামকরা বিভিন্ন আইসিটি ব্র্যান্ডের প্যাভিলিয়ন রয়েছে। বিসিএস কম্পিউটার সিটির নিচ তলায় সজ্জিত মঞ্চে প্রতিদিন থাকছে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এছাড়াও প্রতিযোগিতার মধ্যে আছে শিশু চিত্রাঙ্কন, গেমিং, ডিজিটাল ফটোগ্রাফি, কুইজ এবং রক্তদান কর্মসূচি ছাড়াও বেশ কিছু ভিন্নধর্মী আয়োজন।

সিটিআইটি-২০১৬ এর দর্শনার্থীদের জন্য রয়েছে স্পেসশিপে অ্যালিয়েন প্রদর্শনী, জাদু প্রদর্শনী। শিশুদের জন্য রয়েছে ভৌতিক টানেল।

মেলায় প্রবেশমূল্য ১০ টাকা। তবে প্রতিবারের মতো এবারও মেলায় শিক্ষার্থীরা পরিচয়পত্র দেখিয়ে বিনা মূল্যে প্রবেশের সযোগ পাবে। এছাড়াও প্রতিবন্ধীরা বিনা মূল্যে মেলায় প্রবেশে অগ্রাধিকার পাবেন। প্রতিদিন প্রবেশ টিকেটের ওপর র‌্যাফেল ড্রয়ের মাধ্যমে রয়েছে আকর্ষণীয় সব প্রযুক্তি পণ্যের পুরস্কার।

এবারের মেলা আয়োজনের প্ল্যাটিনাম স্পন্সর এইচপি। এছাড়াও সহযোগী স্পন্সর হিসেবে রয়েছে আসুস, এসার, লেনেভো, গিগাবাইট, আরমাগার্ডেন, হিটাচি, ডেল ও মাইক্রো ট্রেন্ড।

 

 

সিনিউজভয়েস ডেস্ক

Please Share This Post.