রিভিউ: হুয়াওয়ে ওয়াইনাইন ২০১৮

বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় স্মার্টফোন ও প্রযুক্তি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান হুয়াওয়ে সম্প্রতি ওয়াই সিরিজের চার ক্যামেরা ও শক্তিশালী ব্যাটারির স্মার্টফোন ওয়াইনাইন ২০১৮ দেশের বাজারে উন্মোচন করেছে। ফোনটির মূল আকর্ষণ হচ্ছে এর শক্তিশালী ব্যাটারি, চার ক্যামেরা ও তিনটি কার্ড স্লট ব্যবহারের সুবিধা। সাশ্রয়ী দামে ফিচারবহুল স্মার্টফোনটি দেশের বাজারে উল্লেখযোগ্যভাবে ভূমিকা রাখছে।

ফোনটিতে দেয়া আছে হালনাগাদ অ্যান্ড্রয়েড ৮.০ ওরিও অপারেটিং সিস্টেম। এছাড়া দ্রুত ও পরিবর্তনশীল দৃষ্টিনন্দন থিম, হাইকেয়ার, ওয়াই-ফাই ব্রিজ, ইউজার মোড, বিল্ট-ইন অ্যান্টিভাইরাস, হুয়াওয়ে আইডি ও ক্লাউড স্টোরেজ, হুয়াওয়ে শেয়ার এবং সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য নাক্ল সেন্সরের মতো ফিচারসম্বলিত ডিভাইসটিতে ব্যবহার করা হয়েছে হুয়াওয়ে ইএমইউআই ৮।

হুয়াওয়ে ওয়াইনাইন ২০১৮-এর নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরো জোরদার করতে ফেস আনলক ফিচার যুক্ত করা হয়েছে। এর ফলে ব্যবহারকারীরা সেটিংস থেকে ফেস আনলক অপশন চালু করে নিয়ম অনুযায়ী নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করতে পারবেন। ফিচারটির মাধ্যমে শনাক্ত করা সকল তথ্য হুয়াওয়ের কিরিন প্রসেসরে ট্রাস্টেড এক্সিকিউশন এনভায়রনমেন্টের (টিইই) মধ্য দিয়ে সংরক্ষিত থাকবে। ফেস আনলক অপশনটি আনুমানিক মাত্র ৮০০ মিলিসেকেন্ডে ফোন আনলক করতে সক্ষম।

হুয়াওয়ে স্মার্টফোনটিতে ব্যবহার করেছে ১৩ ও ২ মেগাপিক্সেলের ডুয়েল ব্যাক ক্যামেরা এবং মনোমুগ্ধকর সেলফি তোলার জন্য ১৬ ও ২ মেগাপিক্সেলের ডুয়েল ফ্রন্ট ক্যামেরা নিয়ে মোট চারটি ক্যামেরা। অটোফোকাস, বিএসআই সেন্সর, উন্নত ফ্ল্যাশ, জিও ট্যাগিং, প্যানোরমা, সেলফ টাইমার, লাইট পেইন্টিং ও ফেইস ডিটেকশন ফিচার রয়েছে এতে। পেশাদার ক্যামেরা ব্যবহারকারীদের জন্য এতে কম আলোতে ঝকঝকে ছবি তোলার সুবিধা রয়েছে। ফোনটির সামনে ও পেছনে ক্যামেরাগুলোতে দেয়া হয়েছে একটি করে আরজিবি ও মনোক্রোম লেন্স, আর এর ফলে ক্যামেরা দিয়ে তোলা ছবি অত্যন্ত নিখুঁত হয়ে থাকে।

৫.৯ ইঞ্চির আইপিএস ডিসপ্লেসমৃদ্ধ নোভা টুআই-তে ফুল এইচডি থেকেও আরও উন্নত (১০৮০*২১৬০) রেজ্যুলেশনের স্ক্রিন ব্যবহার করা হয়েছে। স্ক্রিন পিক্সেলে অনেক সূক্ষ্ম কাজের কারিগরি দেখিয়েছে হুয়াওয়ে যা ব্যবহারকারীকে দেবে ট্রু-টু-লাইভ কালার ও ভিভিড ইমেজ। চোখের যাতে ক্ষতি না হয় সে লক্ষ্যে এতে ব্লু লাইট ফিল্টার ব্যবহার করা হয়েছে অত্যন্ত নিখুঁতভাবে। উল্লেখ্য, হুয়াওয়ে ফোনটিতে স্মার্টফোনে ব্যবহার করেছে ফুলভিউ ডিসপ্লে।

ডিভাইসটিতে প্রসেসর হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছে ক্ষমতাসম্পন্ন হাইসিলিকন কিরিন ৬৫৯ মডেলের ৬৪ বিটের শক্তিশালী অক্টা কোর প্রসেসর। দ্রুতগতিতে মাল্টিটাস্কিং, গেম খেলাসহ অন্যান্য কাজ করতে এতে আছে ৩ জিবি র‌্যাম ও ৩২ জিবি রম বা অভ্যন্তরীণ মেমোরি। এছাড়া মাইক্রোএসডি কার্ডের মাধ্যমে ২৫৬ গিগাবাইট পর্যন্ত মেমোরি বাড়ানো যাবে।

বিল্ট-ইন ডুয়াল সিম ডুয়াল স্ট্যান্ডবাই কানেক্টিভিটি ও একটি মাইক্রোএসডি কার্ড ব্যবহারের প্রযুক্তির পাশাপাশি সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিৎ করতে বিশ্বমানের বায়োম্যাট্রিক ফিঙ্গারপ্রিন্ট রিকোগনিশন প্রযুক্তি আছে হ্যান্ডসেটটিতে। শুকনা এমনকি ভেজা হাতেও ৩৬০ ডিগ্রি কোণে ফোন আনলক করা, ছবি তোলা এবং কল রিসিভ করা যায়।

দীর্ঘ সময় ধরে চিন্তামুক্ত ব্যবহার নিশ্চিৎ করতে হুয়াওয়ে ওয়াইনাইন ২০১৮-তে আছে ৪০০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ারের নন-রিমুভেবল ব্যাটারি। নরমাল, স্মার্ট ও আল্ট্রা পাওয়ার সেভিং মুডের সমন্বয়ে তিন লেভেলের ইন্টেলিজেন্ট পাওয়ার সেভিং প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছে হ্যান্ডসেটটির ব্যাটারি অংশে।

দেশব্যাপী হুয়াওয়ের সকল ব্র্যান্ড শপ ও অনুমোদিত মোবাইল আউটলেটে এক বছরের বিক্রয়োত্তর সেবাসহ মাত্র ১৯,৫৯০ টাকায় পাওয়া যাচ্ছে হুয়াওয়ে ওয়াইনাইন ২০১৮।

 

 

– সিনিউজভয়েস ডেস্ক