সহজের আয়োজনে মোটরসাইকেল চালকদের প্রশিক্ষণ

বাংলাদেশের দ্রুততম ক্রমবর্ধমান স্টার্টআপ ‘সহজ’, বিশ্বের বৃহত্তম বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা ব্র্যাক-কে সাথে নিয়ে মোটরসাইকেল চালকদের জন্যে আয়োজন করলো  সড়কে নিরাপত্তা ও রক্ষণশীল চালনা প্রশিক্ষণ কর্মসূচির। ব্র্যাক ড্রাইভিং ট্রেইনিং স্কুলে গত ১২-১৫ মে এই বিশেষ প্রশিক্ষণ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। মোটরসাইকেল চালকরা এখানে সড়ক নিরাপত্তা নিশ্চিতকল্পে পরিকল্পিত আন্তর্জাতিক মানের ‘ব্র্যাক সুরক্ষা’ কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করেন। প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে কোন রাইড-শেয়ারিং প্রতিষ্ঠান চালকদের নিরাপত্তায় এ ধরনের পরীক্ষিত প্রশিক্ষণ কর্মসূচির আয়োজন করলো।

এ প্রশিক্ষণ কর্মসূচিতে মোটরসাইকেল চালকদের প্রাতিষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়। কর্মসূচিতে অংশগ্রহণকারীদের সড়কে নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠায় রক্ষণশীল চালনার প্রতি সংবেদনশীল করে গড়ে তোলা হয়। প্রশিক্ষণ চলাকালীন সময়ে অংশগ্রহণকারীদের সড়কে চলাচলের নিয়মনীতি মেনে চলা, ইতিবাচক মনোভাব ধরে রাখা এবং নিরাপদ ও রক্ষণশীল চালনায় অভ্যস্ত করে তোলার প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। প্রশিক্ষণ চলাকালীন সময়ে বেশকিছু ভিডিও আর জটিল পরিস্থিতি উপস্থাপন করে সেগুলো দ্বিপাক্ষিক আলোচনার মাধ্যমে নিরাপদে মোটরসাইকেল চালনার জন্যে অংশগ্রহণকারীদের মাঝে ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি তৈরিতে সহায়তা করা হয়। এছাড়াও, রক্ষণশীল ড্রাইভিং প্রশিক্ষণের মাধ্যমে কিভাবে জ্বালানি, মেরামত এবং রক্ষণাবেক্ষণ খরচ ৩০ শতাংশ পর্যন্ত নামিয়ে আনা সম্ভব সে বিষয়টি চালকদের শেখানো হয়।

সহজ রাইডারদের জন্যে দিল্লিভিত্তিক ইন্দো-অস্ট্রিয়ান প্রতিষ্ঠান হুবার্ট ইবনার (HE) ইন্ডিয়া প্রাইভেট লিমিটেডের কারিগরি সহযোগিতায়, সড়ক নিরাপত্তা ও রক্ষণশীল ড্রাইভিং ট্রেইনিং ম্যাটারিয়েলে আয়োজন করা হয়েছে এই প্রশিক্ষণের। ড্রাইভার ট্রেইনিং ও সড়ক নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠান হিসেবে হুবার্ট ইবনারের রয়েছে ইউরোপ ও এশিয়াতে ৩০ বছরেরও বেশি কাজের অভিজ্ঞতা। সহজ রাইডারদের জন্যে এই প্রশিক্ষণ কর্মসূচিটি বিশেষ ভাবে তৈরি করেছে ‘ব্র্যাক ড্রাইভিং স্কুল’।

চালকদের উপর এ প্রশিক্ষণের প্রভাব পরিমাপ করতে অংশগ্রহণকারীদেরকে যুক্তরাজ্যের ড্রাইভিং স্ট্যান্ডার্ড অথরিটি (ডিএসএ) এর প্রশিক্ষণ মূল্যায়ন উপকরণ ব্যবহার করে শ্রেণিকক্ষ ভিত্তিক প্রাক ও প্রশিক্ষণ পরবর্তী মূল্যায়ন প্রক্রিয়া অনুসরণ করা হয়। মূল্যায়নে দেখা যায় ৯০ শতাংশ চালকই নিরাপদ ও রক্ষণশীল চালনায় ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গি প্রদর্শন করছেন, ৯৫ শতাংশ চালক নিরাপদ দূরত্ব বজায় রেখে চালনা করছেন এবং ৯০ শতাংশ চালকই নিরাপদ গতিসীমা এবং অতিরিক্ত গতির পরিমাণ সম্পর্কে বেশ সচেতনতা প্রদর্শন করছেন।

এ প্রশিক্ষণে অংশগ্রহণকারীদের ব্র্যাক ও বিআরটিএ অনুমোদিত সনদ প্রদান করা হয়।

-সিনিউজভয়েস/জিডিটি/১৫মে/১৯

Please Share This Post.