ভিডিওটি শুধু দেখলেই হবে, জিতে যাবে আমাদের অনুভূতি

অজান্তেই কত কিছুই না ভাইরাল করি! কিন্তু এটা আমাদের আবেগ, অনুভূতি আর অহংকারের বিষয়। শিহরণ জাগানোর মতো ঘটনা। বিশ্বের বড় একটি দেশে বাংলাদেশ নামটি আরেকবার নতুন করে উচ্চারিত হওয়ার অপেক্ষায় আমরা। যদি হয়, সেখানেই তো জাতি হিসেবে গর্ব। কয়েক ফোটা আনন্দের অশ্রু গড়িয়ে পড়ুক না আরেকবার, বিজয়ের আনন্দে!

যুক্তরাষ্ট্রের গাড়ি প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান শেভ্রলে তাদের একটি ক্যাম্পেইনের জন্য পুরো কানাডা থেকে ১২টি পরিবারকে বাছাই করে। তার মধ্যে কানাডার অন্টারিওতে বসবাসরত বাংলাদেশের রাজীব হাসান চৌধুরী ও তার পরিবারও নির্বাচিত হয়েছে। পরিবারটি কেবল বাংলাদেশ নয়, পুরো এশিয়ার মধ্যে একমাত্র। বাকি ১১টা পরিবারের সবাই কানাডিয়ান। এই ১২টি পরিবারকে তারা তিন দিনের জন্য একটি করে নতুন গাড়ি দিয়ে ঘুরতে পাঠায় ১২টি জায়গায়। রাজীব হাসান চৌধুরী পরিবার নিয়ে পরিদর্শন করে টোবারমরি নামক একটি মনোরম দর্শনীয় স্থান।

প্রতিযোগিতার কাজ ছিল দর্শনীয় স্থান পরির্দশন করে সবাইকে একটি করে ভিডিও বানাতে হবে। শেভ্রলের ইউটিউব চ্যানেল থেকে শেয়ার করা যে পরিবারটির ভিডিও সবচেয়ে বেশিবার দেখা হবে সেই পরিবারটি জিতবে ‘বেস্ট ভিডিও’ বানানোর খেতাব এবং সেই শহরটি জিতে নিবে ‘মোস্ট রোড-ট্রিপেবল টাউন’-এর খেতাব।

মজার বিষয় হচ্ছে ভিডিওটি শুধু দেখলেই হবে, কোনো লাইক দেওয়ারও প্রয়োজন নেই। যতবার দেখা হবে ততবারই ভিউ বাড়বে। সোনার বাংলাদেশের এই পরিবারটি জয়ের লক্ষ্য থেকে অল্প কিছু দূরে আছে। আমরাই পারি বাংলাদেশ নামটিকে কানাডার এই প্রতিযোগিতায় নতুন করে পরিচয় করিয়ে দিতে। তবে, কৌতুহলবশত অন্য পরিবারের ভিডিও প্রতিযোগিতা চলাকালীন না দেখাই ভালো। আগে তো আমাদের জয় হোক!

ভিডিওটি দেখুন:

 

 

– সিনিউজভয়েস ডেস্ক

Please Share This Post.