বেসিস নির্বাচন হচ্ছে, পারলেন না ওরা ১১ জন!

বর্তমান তফসিলে ৩১ মার্চেই অনুষ্ঠিত হচ্ছে বেসিস নির্বাচন। বেসিসের সাবেক সভাপতি ও বর্তমান ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার ‌নির্বাচন বাতিল হওয়ার বিষয়টি সমাধান করে দিয়েছেন। মোস্তাফা জব্বারের অনুরোধে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বেসিস নির্বাচন বাতিলে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের চিঠি বা সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করার বিষয়ে আশ্বস্ত করেছেন।

মঙ্গলবার রাতে বেসিস নির্বাচন বাতিলের বিষয়টি নিয়ে বেসিস সভাপতি আলমাস কবীর, বেসিসের সাবেক সভাপতি মাহবুব জামানসহ একটি প্রতিনিধি দল ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন।

বিষয়টি নিয়ে মন্ত্রীর সঙ্গে আরও দেখা করেছেন বেসিস পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমান সোহেল ও দেলোয়ার হোসেন ফারুক।তারা মন্ত্রীকে বিষয়টি সুরাহা করে দেয়ার জন্য অনুরোধ করেন। মন্ত্রী সকলের কথা শুনে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদকে ফোন দেন। তিনি বাণিজ্যমন্ত্রীকে আশ্বস্ত করেন যে, বেসিসের বর্তমান সমস্যাগুলো নতুন বোর্ড এসে সমাধান করে দেবে। তাই ডিটিওর সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে ৩১ মার্চ বেসিস নির্বাচন অনুষ্ঠানে পদক্ষেপ নেয়ার অনুরোধ করেন। এরপর বাণিজ্যমন্ত্রী ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রীকে নির্বাচন অনুষ্ঠানের বিষয়ের আশ্বস্ত করেন।

উল্লেখ্য, আগামী ৩১ মার্চ অনুষ্ঠিতব্য বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেসের (বেসিস) পরিচালনা পর্ষদের ২০১৮-২০ মেয়াদের নির্বাচন স্থগিত করতে নির্দেশ দিয়েছিল বাণিজ্য মন্ত্রণালয়।

২১ মার্চ মধুমতি টেকের প্রোপাইটার রকিবুল মিনাসহ ১১ জনের আবেদনের প্রেক্ষিতে ২২ মার্চ নির্বাচন বন্ধের নির্দেশ দিয়ে একটি চিঠি বেসিস নির্বাচন কমিশনের কাছে পাঠায় বাণিজ্যমন্ত্রণালয়।

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারি সচিব সৈয়দা নাহিদা হাবিবা স্বাক্ষরিত চিঠিতে বলা হয়েছে, ২০১৭ সালের ২২ নভেম্বর যে বিশেষ সাধারণ সভায় (ইজিএম) হওয়ার কথা ছিল সেটা শেষ করে এবং এখন পর্যন্ত বেসিস যেসব বিষয় সংশোধন না করে ঝুলিয়ে রেখেছে সেগুলো সংশোধন করে পুনরায় তফশিল করে নির্বাচন করতে হবে।

সিনিউজভয়েস//ডেস্ক/

Please Share This Post.