বাংলাদেশে ফেক অ্যাকাউন্ট বন্ধ করছে ফেসবুক

ভুয়া অ্যাকাউন্ট ও ভুয়া লাইক ঠেকাতে নতুন পদক্ষেপ নিয়েছে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ।

ফেসবুকের প্রোটেক্ট অ্যান্ড কেয়ার টিমের টেকনিক্যাল প্রোগ্রাম ম্যানেজার শবনম শেখ ১৩ এপ্রিল থেকে ভুয়া অ্যাকাউন্ট এবং ১৪ এপ্রিল থেকে স্প্যামারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ শুরুর ঘোষণা দিয়েছেন।

১৩ এপ্রিল ভুয়া অ্যাকাউন্ট বন্ধের প্রথম পদক্ষেপেই ফ্রান্সের ৩০ হাজার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেওয়ার কথা জানানো হয়েছে। আজ বাংলাদেশেও অনেকের ফেক অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে জেনুইন অ্যাকাউন্টধারী অনেকের অ্যাকাউন্টও সন্দেহের তালিকায় ফেলে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। বন্ধ করা কোনো অ্যাকাউন্ট চালু করতে ভেরিফিকেশন প্রক্রিয়ার মধ্যে যেতে হবে।

১৪ এপ্রিল শবনম শেখ তার বার্তায় বাংলাদেশ, ইন্দোনেশিয়া, সৌদি আরবসহ আরো কয়েকটি দেশ থেকে সবচেয়ে বেশি স্প্যাম ফেসবুকে ছাড়ানো হচ্ছে বলে জানিয়েছেন। এসব দেশ থেকে ভুয়া লাইক ও ভুয়া অ্যাকাউন্ট শণাক্ত করে বন্ধ করে দেওয়া হবে বলে জানানো হয়েছে।

বাংলাদেশে আজ অনেক ফেসবুক ব্যবহারকারী জানিয়েছেন, তাদের বন্ধু তালিকায় যারা ছিলেন, তাদের সংখ্যা কমেছে। অন্যদিকে অনেক ফেসবুক পেজেও দেখা গেছে, লাইকের সংখ্যা কমেছে।

ফেসবুক কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তারা কোনো আইডিকে ভুয়া মনে করে বন্ধ করে দিলেও তা পুনরুদ্ধারের সুযোগ রয়েছে। তবে আইডি যে ভুয়া না, তার প্রমাণ দিতে হবে। জাতীয় পরিচয়পত্র, মেইল অ্যাড্রেস, অ্যাকাউন্টের নাম ফেসবুকের কাছে পাঠাতে হবে। ফেসবুকের হেল্প সেন্টারে গিয়ে ‘সাবমিট অ্যান আপিল’ লিংকে ক্লিক করে প্রয়োজনীয় তথ্য সরবরাহ করতে হবে।

 

– সিনিউজভয়েস ডেস্ক