বস্ত্র ও পোশাক কারখানার যন্ত্র প্রদর্শনী শুরু

আন্তর্জাতিক বস্ত্র ও পোশাক কারখানার যন্ত্র প্রদর্শনী (ডিটিজি) শুরু হয়েছে ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ বৃহস্পতিবার। বস্ত্রকল মালিকদের সংগঠন বাংলাদেশ টেক্সটাইল মিলস অ্যাসোসিয়েশন (বিটিএমএ), হংকংয়ের প্রতিষ্ঠান ইয়র্কারস ট্রেড অ্যান্ড মার্কেটিং সার্ভিসেস এবং তাইওয়ানের চ্যান চাও ইন্টারন্যাশনাল কোম্পানি যৌথভাবে চার দিনব্যাপী এই প্রদর্শনীর আয়োজন করেছে।

ঢাকার বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) এ প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের মাননীয় প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম। এতে আরও উপস্থিত ছিলেন বিটিএমএ-এর সভাপতি ও সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা তপন চৌধুরী, সহসভাপতি হোসেন মাহমুদ, পরিচালক খোরশেদ আলম, মোশারফ হোসেন, ডিসিসি বাংলাদেশের কান্ট্রি ম্যানেজার এইচ এন আশিকুর রহমান প্রমুখ।

প্রদর্শনীতে বিশ্বের ৩৩টি দেশের এক হাজার মেশিনারি প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান অংশ নিয়েছে। বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো ওয়ানস্টপ ডিজিটাল সল্যুশন, সাবলিমেশন এবং স্ক্রিন প্রিন্টের সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ডিসিসি এই প্রদর্শনীতে অংশ নিয়েছে। সম্প্রতি, ডিসিসি প্রিন্ট ভিশন এলএলপি টেক্সটাইল, প্রিন্টিং ইন্ডাস্ট্রিতে ক্যাপাসিটি বিল্ডিং এবং এক্সপার্টাইজ তৈরির লক্ষ্য নিয়ে বাংলাদেশে যাত্রা শুরু করে।

প্রদর্শনীটি প্রতিদিন দুপুর ১২টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে। ২০০৪ সাল থেকে শুরু হওয়া এবারের আয়োজনটি বিটিএমএর ১৪তম প্রয়াস। বস্ত্র খাতের নিত্যনতুন যন্ত্রপাতি ও প্রযুক্তির পরিবর্তনের সঙ্গে উদ্যোক্তাদের পরিচিত করাতে এ প্রদর্শনী আয়োজনের মূল উদ্দেশ্য। এ কারণে প্রতিবছর প্রদর্শনীতে তাৎক্ষণিক ক্রয় আদেশ বা স্পট অর্ডার পান প্রদর্শনীতে অংশ নেওয়া প্রতিষ্ঠানগুলো।

প্রদর্শনীতে অংশগ্রহণ সম্পর্কে ডিসিসি বাংলাদেশের কান্ট্রি ম্যানেজার এইচ এন আশিকুর রহমান বলেন, ‘ডিসিসি সবসময় বাংলাদেশের বস্ত্র, পোশাক ও প্রিন্টিং খাতে উদ্ভাবনী এবং ওয়ান স্টপ সেবাসমূহ দিয়ে থাকে। বাংলাদেশের টেক্সটাইল ইন্ডাস্ট্রির গ্রাহকদের অনুরোধের ফলে ডিসিসি বিশ্বমানের টেক্সটাইল প্রিন্টিং স্টুডিও এবং ক্যাপাসিটি বিল্ডিং ও ইন্ডাস্ট্রিতে এক্সপার্টিজ তৈরি করতে বাংলাদেশে ডিসিসি কার্যক্রম শুরু করে। এ প্রদর্শনীতে অংশগ্রহণে মাধ্যমে সংশ্লিষ্টরা ডিসিসি-এর সেবাসমূহ সম্পর্কে জানতে পারবে এবং এর ফলে দেশের পোশাক খাতের লক্ষ্য অর্জনের পথ আরও সহজ হবে।’

ডিসিসি সর্ম্পকে-

টেক্সটাইল প্রিন্টিং ইন্ডাস্ট্রিতে ধাভাল কালার কেম (ডিসিসি) প্রিন্ট ভিশন এলএলপি একটি বিশ্বস্ত নাম। এশিয়ার বিভিন্ন দেশে ডিসিসি-এর বিস্তর পরিসরে ওয়ান স্টপ সল্যুশন নিয়ে ৪০ বছরের অভিজ্ঞতা রয়েছে। ডিসিসি গ্রুপ ২০টি আন্তর্জাতিক ব্র্যান্ডকে প্রতিনিধিত্ব করছে, যেগুলো তাদের কর্মক্ষেত্রে সত্যি সেরা অবস্থানে রয়েছে। ডিসিসি ২০০ কর্মী ও গ্রাহকদের হৃদয়ে অবস্থান করে দ্রুতই সম্প্রসারিত হয়েছে। ডিসিসি নিজেকে আন্তর্জাতিক মানের প্রিন্টিং কালি রপ্তানিকারক হিসেবে প্রস্তুত করতে যুক্তরাষ্ট্রের কালি প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যৌথভাবে কার্যক্রম শুরু করেছে।

 

– সিনিউজভয়েস ডেস্ক

 

Please Share This Post.