প্রথম ফাইভজি সমর্থিত ভাঁজযোগ্য স্মার্টফোন মেট এক্স   

বিশ্বে প্রথমবারের মতো ফাইভজি সমর্থিত ভাঁজযোগ্য (ফোল্ডেবল) স্মার্টফোন মেট এক্স প্রদর্শন করলো প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান হুয়াওয়ে। ৭ ন্যানোমিটারের চিপসেটের বেলং ৫০০০, ৪৫০০ এমএএইচের শক্তিশালী ব্যাটারি, ৫৫ ওয়াটের সুপার চার্জ সুবিধাসহ হুয়াওয়ে মেট এক্স বার্সেলোনায় অনুষ্ঠিত মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস ২০১৯ (এমডিব্লউসি) এ স্মার্টফোনটি প্রদর্শন করা হয়।

ভাঁজ করা হলে স্মার্টফোনটির ডিসপ্লের আকার হবে ৬.৬ ইঞ্চি। ভাঁজ খোলা হলে স্মার্টফোনটি ৮ ইঞ্চি ডিসপ্লের ট্যাবলয়েডের মতো দেখা যাবে।

হুয়াওয়ে কনজ্যুমার বিজনেস গ্রুপের প্রধান নির্বাহী রিচার্ড য়্যু বলেন, হুয়াওয়ের গবেষণা ও উন্নয়ন শাখার অবিরত পরিশ্রমের ফলে হুয়াওয়ে মেট এক্স এর মতো বৈপ্লবিক একটি স্মার্টফোন পেয়েছি। এটা ছিল অনেকটা অনাবিষ্কৃত মহাদেশে পা বাড়ানোর মতো। হুয়াওয়ে মেট এক্স ফাইভ জি ফোল্ডেবল সুবিধা সমর্থিত। এছাড়াও এতে এআইসহ দারুণ সব ফিচার রয়েছে, যা গ্রাহকদের সন্তুষ্ট করবে। ফাইভজি নিয়ে মেট এক্সই প্রথম গ্রাহকদের দোঁরগোড়ায় পৌঁছাবে।

ফালকন উইং মেকানিক্যাল হিং: হুয়াওয়ের দৃঢ় পদক্ষেপের ফল হলো হুয়াওয়ে মেট এক্স। যা একইসাথে স্মার্টফোন ও ট্যাবলেট হিসেবে ব্যবহার করা যাবে। এতে রয়েছে নমনীয় ওএলইডি প্যানেল এবং একটি ফালকন উইং মেকানিক্যাল হিং।
ভাঁজ করা অবস্থান স্মার্টফোনটি ফুল ডিসপ্লে ৬.৬ ইঞ্চির সমান হয়। এছাড়াও ভাঁজ করা না থাকলে এর ডিসপ্লে ৮ ইঞ্চি ট্যাবলয়েডের মতো দেখা যায়। এর পুরুত্ব থাকে ৫.৪ মিলিমিটার।

৫জি’র সাথে বসবাস: হুয়াওয়ে মেট এক্স ভাঁজযোগ্য এবং ফাইভজি সমর্থিত। অতুলনীয় ফালকন উইং মেক্যানিকাল হিংনহ স্মার্টফোনটিতে ব্যবহার করা হয়েছে ৫জির সবথেকে অত্যাধুনিক চিপসেট বেলং ৫০০০।

ক্যামেরা: হুয়াওয়ের ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোনগুলোতে ক্যামেরা বরবরই অনবদ্য। মেট এক্স মডেলের স্মার্টফোনটির ক্যামেরাও এর ব্যতিক্র নয়। এতে ব্যবহার করা হয়েছে লেইকার ক্যামেরা। এর সঙ্গে থাকবে ক্যামেরার অত্যাধুনিক সব প্রযুক্তি ও ফিচার।

৫জি মডেম চিপসেট: এ ফোনটিতে বিশ্বের প্রথমবারের মতো ব্যবহার করা হয়েছে ৭ ন্যানোমিটারের ৫জি মডেম বেলং ৫০০০ চিপসেট। এর ডাউনলোড স্পিড গ্রাহকদের অভিভূত করবে। প্রতি সেকেন্ডে ডাউনলোড স্পিড পাওয়া যাবে ৪.৬ জিবিপিএস।

সুপার চার্জ ও শক্তিশালী ব্যাটারি: ৫.৪ মিলিমিটার পুরুত্বের হুয়াওয়ে মেট এক্স এর ব্যাটারি ৪৫০০ এমএএইচ। এর চার্জ সংরক্ষণে ব্যবহার করা হয়েছে এআই প্রযুক্তি। সুপার চার্জিং এর সাহায্যে মাত্র ৩০ মিনিটেই ৮৫ শতাংশ চার্জ করা যাবে স্মার্টফোনটি।

ফোনটি ভিডিওতে দেখুন

-সিনিউজভয়েস/জিডিটি/২৬এফ/১৯

 

Please Share This Post.