দেশে রোবট ব্যবহারে উৎপাদন বাড়বে বহুগুণ

ভারত ও শ্রীলংকার পরে বাংলাদেশে আসছে ডেনমার্ক-ভিত্তিক বিশ্বের শীর্ষ কোলাবোরেটিভ রোবটস (কোবটস) নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ইউনিভার্সেল রোটবস।

আজ রোববার রাজধানীর ওয়েস্টিন হোটেলে এ উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানে আয়োজকরা জানান, বাংলাদেশে ত্রিশ লাখের বেশি মানুষ উৎপাদনমুখী শিল্পকারখানায় কাজ করে থাকে। আগামীতে আধুনিক প্রযুক্তির সম্প্রসারণের কারণে বেকারত্ব বেড়ে যেতে পারে-এমন আশঙ্কা উৎপাদনকারীদের। বিশেষকরে এটা হতে পারে আমাদের তৈরী পোশাকশিল্পে। কারণ এখানকার একটা বড় অংশের শ্রমিকই অদক্ষ। আর তাই আন্তর্জাতিক বাজারের সাথে প্রতিযোগিতা করে আমাদের শ্রমিকরা পেরে উঠছেননা। তবে দেশে প্রথমবারের মতো শিল্পকারখানায় এই ধরনের রোবট আসলে উৎপাদন বেড়ে যাবে বহুগুণে।

কোলাবোরেটিভ রোবটস ওজনে হাল্কা এবং এর বাহুগুলো (আর্মস) সহজেই ব্যবহারকরা যায়। ইউনিভার্সেল রোবটস ২০০৮ সালে এই কোরাবটস প্রথম বাজারে আনে। মানুষ এবং এই রোবটগুলো একে অপরের পরিপূরক হয়ে কাজ করতে পারে। অর্থাৎ মানুষের ‘হেল্পিংহ্যান্ড’ হিসেবে কাজ করে। এরফলে নিঁখুতভাবে কম পরিশ্রমে স্বল্প সময়ে যেকোনো কাজ করা সম্ভব।

বাংলাদেশে এমন রোবটস নিয়ে আসা উপলক্ষে ইউনিভার্সেল রোবটস’র দক্ষিণ এশিয়ার মহাব্যবস্থাপক (জিএম) প্রদীপ ডেভিড বলেন, “শিল্প উৎপাদন খাতের জন্য কোলাবোরেটিভ রোবট একটি শক্তিশালী উদ্ভাবন। এরফলে শিল্পে উৎপাদন বৃদ্ধি পায়। শ্রমিকরা আরো বেশি কাজ করতে পারে। ভারতের একটি ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পখাতে এমন একটি রোবট ২০১৭ সালে চালু হওয়ার পর প্রথম আটমাসে ৩০০ ভাগ উৎপাদনবৃদ্ধি পেয়েছে। ভারত ও শ্রীলংকার পরে এখন আমরা সম্ভাবনাময় বাংলাদেশের দিকে তাকিয়ে আছি।

সিনিজভয়েস//ডেস্ক/

Please Share This Post.