দারাজে মোবাইল কিনে হুইল সাবান পেল গ্রাহক

জীবনটাকে সুন্দর ও সহজ করতে দিন দিন মানুষ অনলাইন শপিং এর উপর নির্ভর হয়ে যাচ্ছে। কারণ ঘরে বসেই কেনাকাটা করা যায় সব প্রয়োজনীয় জিনিস। তবে অনলাইনে শপিং করে কেউকেউ  আবার প্রতারিতও হচ্ছেন।এবার এমন অভিযোগ এসেছে দেশের বৃহৎ অনলাইন শপিং প্ল্যাটফর্ম দারাজের বিরুদ্ধে।

ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ উপজেলার ভাকুড়া গ্রামের ব্যবসায়ী আমজাদ হোসেন লিটন অভিযোগ করেছেন, দারাজে মোবাইল একটি স্যামসাং এস৮ প্লাস ফোন অর্ডার দিয়ে তার বদলে পেয়েছেন তিন প্যাকেট হুইল সাবান।

আমজাদ হোসেন গণমাধ্যমকে জানান, দারাজ অনলাইন শপে থেকে স্যামসাং এস৮ প্লাস মোবাইল অর্ডার করেন তিনি। অর্ডারের দুই দিন পর  গত ৬ এপ্রিল সুন্দরবন কুরিয়ার সার্ভিসের ঠাকুরগাঁও সদর শাখায় গিয়ে তিনি মোবাইল ফোনটির দাম ৩৬ হাজার ২৭১ টাকা পরিশোধ করেন। এরপর দারাজ থেকে পাঠানো প্যাকেটটি কুরিয়ার সার্ভিসের লোকজনের সামনেই তিনি খুলে দেখেন, ভেতরে কোনো ফোন নেই। ফোনের বদলে রয়েছে ৩টি হুইল সাবান। বিষয়টি তাৎক্ষণিকভাবে তিনি কুরিয়ার সার্ভিস কর্তৃপক্ষকে জানান ও দারাজের কর্তৃপক্ষকে ফোন করেন।

এ বিষয়ে আমজাদ হোসেন বলেন, ভুল হয়েছে স্বীকার করে বিষয়টি তদন্ত করে দেখবে বলে আমাকে জানিয়েছেন দারাজের কর্তৃপক্ষ। আর আমার জন্য একটি স্যামসাং এস৮ প্লাস মোবাইল পাঠাচ্ছে বলে জানিয়েছে তারা। তবে সেই ফোন এখনো হাতে পাইনি।

সুন্দরবন কুরিয়ার সার্ভিসের সিসি টিভি ফুটেজে ঘটনাটি রেকর্ড রয়েছে জানিয়ে লিটন আরো বলেন, এরকম অবস্থা চলতে থাকলে অনলাইন কেনাকাটায় মানুষের বিশ্বাস উঠে যাবে।

এ ব্যাপারে ওই অনলাইন শপের জনসংযোগ কর্মকর্তা ফয়েজ বলেন, ব্যাপারটা আমরা জেনেছি। কোথাও একটা ভুল হয়েছে। ভুলটা কোথায় হয়েছে সেটা চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে।

-সিনিউজভয়েস/জিডিটি/৯এপি/১৯

 

 

Please Share This Post.