ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটিতে উদ্যোক্তা তৈরির স্নাতক কোর্স

দেশের আর্থসামাজিক উন্নয়নে, বেকার সমস্যা সমাধানে এবং নতুন নতুন কর্মসংস্থান তৈরির লক্ষ্যে প্রচুর উদ্যোক্তা তৈরির বিকল্প নেই। এ বিষয়টিকে মাথায় রেখে নতুন উদ্যোক্তা তৈরির জন্য ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি নতুন বিভাগ চালু করা থেকে শুরু করে উদ্যোক্তা উন্নয়নে নানাবিধ উদ্যোগ গ্রহণ করে যাচ্ছে।

তারই ধারাবাহিকতায় ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ‘এন্ট্রাপ্রেনিউরশিপ’ বিভাগ ‘Are You the Next Startup?’ শিরোনামে আগামী পাঁচ বছরে ৫০০ (৩০% মহিলা) নতুন উদ্যোক্তা তৈরির প্রকল্প হাতে নিয়েছে। এ প্রকল্পের আওতায় সারা দেশ থেকে বাছাই করা যোগ্য এবং উদ্যমী তরুণ-তরুণীদের পূর্নাঙ্গ বৃত্তিসহ সফল উদ্যোক্তা তৈরি করা পর্যন্ত প্রয়োজনীয় নানাবিধ সহযোগিতা প্রদান করা হবে।

১ এপ্রিল শনিবার, জাতীয় প্রেস ক্লাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানানো হয়।

৫০০ (৩০% মহিলা) নতুন সফল উদ্যোক্তা সৃষ্টির বিভিন্ন ধাপ ও প্রক্রিয়াসমূহ সাংবাদিকদের মাধ্যমে গণমাধ্যমে তুলে ধরার লক্ষ্যে সংবাদ সম্মেলনে এ কর্মসূচির বিস্তারিত তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ট্রাষ্টিবোর্ডের চেয়ারম্যান মো. সবুর খান। স্টুডেন্ট অ্যাফেয়ার্সের পরিচালক সৈয়দ মিজানুর রহমানের সঞ্চালনায় আরো বক্তব্য রাখেন ইনোভেশন অ্যান্ড ইনকিউবেশন সেন্টারের পরিচালক আবু তাহের খান, এন্ট্রাপ্রেনিউরশিপ বিভাগের প্রধান সৈয়দ মারুফ রেজা, চ্যানেল -২৪ এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা তরুন চক্রবর্তী, ট্রান্সকম গ্রুপের (SK&F) পরিচালক ডা. মো. মোজাহিদুল ইসলাম, PKSF এর মহাব্যবস্থাপক মো. জিয়াউদ্দিন, এসিআই এর নির্বাহী পরিচালক সৈয়দ মো. আলমগীর, অ্যাডকম লি. এর মহাব্যবস্থাপক রবীন দত্ত ও বিআরবি ক্যাবলস্ এর হেড অব মার্কেটিং রফিকুল ইসলাম রনি প্রমুখ।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ‘Are You the Next Startup?’ হচ্ছে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ‘এন্ট্রাপ্রেনিউরশিপ’ বিভাগের উদ্যোগে আয়োজিত বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় তরুণ স্টার্ট আপ ও উদ্যোক্তাদের খুঁজে বের করার জাতীয় মেধা অন্বেষণের উদ্যোগ। এ উদ্যোগের মাধ্যমে প্রতিটি বিজয়ীর মধ্যে লুকিয়ে থাকা উদ্যোক্তা হওয়ার স্বপ্ন বা ব্যবসায়িক ভাবনাসমূহকে উদ্ভাবন করে পরিকল্পিতভাবে সংঘটিত ও সঠিক গন্তব্যে পরিচালিত করবে। এ যাত্রায় সাথী হিসেবে থাকবে দেশের কিছু বরেণ্য উদ্যোক্তা ও প্রতিষ্ঠান। এদের মধ্যে আছেন শ্রদ্ধেয় ড. কাজী খলিকুজ্জামান আহমেদ (পিকেএসএফ), লতিফুর রহমান ( ট্রান্সকম গ্রুপ), আলহাজ্জ্ব সুফী মো. মিজানুর রহমান (পিএইচপি গ্রুপ), সৈয়দ মঞ্জুর এলাহী (এপেক্স গ্রুপ), এম আনিস উদ দৌলা (এসিআই), এ কে আজাদ (হা-মীম গ্রুপ), মিসেস গীতি আরা সাফিয়া চৌধুরী ( অ্যাডকম লি.), মিসেস রোকেয়া আফজাল ( বাংলাদেশ ফেডারেশন অব উইমেন্স এন্ট্রপ্রেনিউরশিপ) এবং মো. মজিবর রহমান বিআরবি ক্যাবলস্ লি.)।

‘Are You the Next Startup?’এর মূল বৈশিষ্ট্য হচ্ছে বিজয়ীদের জন্য চার বছরের স্নাতক (সম্মান ) কোর্সে অধ্যায়নের সুযোগ তৈরি করা।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, নিবিঢ় গবেষণা ও তথ্য অনুসন্ধানে দেখা গেছে যে, শুধুমাত্র যথাযথ জ্ঞান ও সঠিক দিক নির্দেশনার অভাবে অনেক স্টার্ট আপ বা উদ্যোক্তারা সফলভাবে বেড়ে উঠতে পারে না। এ কর্মসূচির আওতায় একটি স্বতন্ত্র প্লাটফর্মের মাধ্যমে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ‘এন্ট্রপ্রেনিউরশিপ’ বিভাগের অধীনে হাতেকলমে কাজ শিখতে অপেশাদার উদ্যোক্তারাও প্রশিক্ষিত ও স্নাতক ডিগ্রি অর্জনের সুযোগ পাবে। সম্ভাবনাময় ও আশাপ্রদ বিজয়ী উদ্যোক্তাদের চার বছর মেয়াদী স্নাতক কোর্সে অধ্যায়নকালে ১০০% বৃত্তি প্রদান করার পাশাপাশি ব্যবহারিক ও তত্ত্বীয় শিক্ষা প্রদান করা হবে, যা তাদেরকে চার বছরের শিক্ষা জীবনে একজন সফল উদ্যোক্তা হতে অনুপ্রাণিত করবে। অধিকন্তু এ প্রকল্পের আওতায় প্রতিটি শিক্ষার্থী অধ্যায়নকাল থেকেই কিছু কিছু অর্থ উপার্জনের সুযোগ পাবে যা তাদের নতুন ব্যবসা শুরু করার ক্ষেত্রে মূলধন হিসেবে কাজ করবে। এবং ব্যবসাখাতে তাদের সম্পৃক্ততাকে নিশ্চিত করবে। সত্যিকার অর্থে এ প্রকল্প উদ্যোক্তা তৈরী ও দেশের বিপুল সংখ্যক শিক্ষিত বেকার যুবকদের কর্মসংস্থান তৈরির মাধ্যমে প্রত্যক্ষভাবে জাতীয় প্রবৃদ্ধি উন্নয়নে বিশেষ অবদান রাখবে বলে সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়।

বিজয়ীরা তাদের চার বছরের স্নাতক অধ্যায়নকালীন সময়ে তত্ত্বীয় ও ব্যবহারিক জ্ঞানার্জনের পাশাপাশি বাস্তব অভিজ্ঞতা অর্জন করতে সক্ষম হবে, যা তাদের সফল উদ্যোক্তা হতে সহায়তা করবে। মহিলা উদ্যোক্তা, শারীরিক প্রতিবন্ধী ও বিশেষ দক্ষতাসম্পন্নদের জন্য ৩০% কোটা নির্ধারিত থাকবে।

১ এপ্রিল থেকে অনলাইনে দরখাস্ত আহবান শুরু হয়েছে এবং অনলাইনে দরখাস্ত জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ১২ এপ্রিল ২০১৭। অনলাইনে প্রাক নির্বাচনী রাউন্ড শেষ হবে আগামী ১৫ এপ্রিল ২০১৭।

প্রাথমিকভাবে নির্বাচিতদের গ্রুমিং ও বুস্ট আপ ক্যাম্প হবে আগামী ২০-২৭ এপ্রিল ২০১৭ এবং চূড়ান্ত নির্বাচন পর্ব অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১ মে ২০১৭। বিস্তারিত জানতে ও রেজিস্ট্রেশন করতে ভিজিট করুন: http://next-startup.net

 

– সিনিউজভয়েস ডেস্ক

Please Share This Post.