ডার্ক ওয়েবে বিক্রি হচ্ছে তারকাদের ফোন নম্বর

জনপ্রিয় ফটো শেয়ারিং সাইট ইনস্টাগ্রামে গত সপ্তাহে বড় ধরনের নিরাপত্তা ত্রুটি দেখা দেয়, যার কারণে ধারণা করা হয়েছিল হ্যাকাররা সংগীতশিল্পী সেলেনা গোমেজের অ্যাকাউন্টে প্রবেশ করতে পেরেছিল। কিন্তু এখন দেখা যাচ্ছে, ধারণার চেয়েও অনেক বেশি সংখ্যক ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত তথ্য রয়েছে হ্যাকারদের কাছে।

ইনস্টাগ্রামে নিরাপত্তা ত্রুটির কারণে ২৫ বছর বয়সি গায়িকা সেলেনা গোমেজের অ্যাকাউন্টে প্রবেশ করে হ্যাকাররা তার সাবেক বয়ফ্রেন্ড জাস্টিন বিবারের সঙ্গে নগ্ন ছবিগুলো তার অ্যাকাউন্টে পোস্ট করে। সেলেনা গোমেজ ছাড়াও আরো বেশ কয়েকজন তারকার ব্যক্তিগত তথ্যও চুরি করে হ্যাকাররা।

এই সপ্তাহের শুরুতে নিরাপত্তা গবেষকরা দেখতে পেয়েছেন যে, শুধু তারকারা নয় বরং অন্তত ৬ মিলিয়ন ইনস্টাগ্রাম ব্যবকারকারীর ব্যক্তিগত তথ্য চুরি করেছে হ্যাকাররা। ডার্ক ওয়েবে প্রায় ৬ মিলিয়ন ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীর ফোন নম্বর এবং ইমেইল অ্যাড্রেসের একটি ডাটাবেজ খুলেছে হ্যাকাররা।

ইনস্টাগ্রামের চিফ টেকনিক্যাল অফিসার মাইক ক্রিগার একটি ব্লগপোস্টে ত্রুটির কথা স্বীকার করেন। তিনি বলেন, ‘আমরা খুব দ্রুত বাগ সংশোধন করেছি এবং বিষয়টি নিয়ে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার সঙ্গে কাজ করছি। যদিও কোন নির্দিষ্ট অ্যাকাউন্টগুলোর তথ্য চুরি হয়েছে তা আমরা চিহ্নিত করতে পারিনি, তবে আমরা বিশ্বাস করি কম সংখ্যক ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীর তথ্য হ্যাকাররা চুরি করতে পেরেছে।’

‘ব্যবহারকারীদের সচেতন থাকার জন্য আমরা অনুরোধ জানাচ্ছি। সন্দেহজনক কার্যকলাপ যেমন অচেনা ফোনকল, মেসেজ অথবা ইমেইল দেখলে সতর্কতা অবলম্বন করুন।’

নিরাপত্তা গবেষকরা জানিয়েছেন, ডার্ক ওয়েবে প্রায় ৬ মিলিয়ন ব্যবহারকারীর ফোন নম্বর ও ইমেইল অ্যাড্রেস- প্রতিটি ১০ ডলারের বিনিময়ে বিক্রি করছে হ্যাকাররা। যার মধ্যে অনেক তারকার ফোন নম্বর ও ইমেইল অ্যাড্রেস রয়েছে। সেলেনা গোমেজ, আরিয়ানা গ্রান্ডে, ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো, বেয়ন্সে, টেইলর সুইফট, কিম কার্দাশিয়ান, কাইলি জেনার, দ্য রক, জাস্টিন বিবার, কেন্ডাল জেনার, নিকি মিনাজ, নেইমার, মাইলি সাইরাস, কেটি পেরি, কোল কার্দাশিয়ান, জাস্টিন টিম্বারলেক, ভ্যান ডিজেল, সাকিরা, এমা ওয়াটসন, গিগি হাদিদ, অ্যাডেল সহ অনেকে।

ইনস্টাগ্রামের এই নিরাপত্তা ত্রুটি প্রথমে শণাক্ত করেন ক্যাসপারস্কির নিরাপত্তা গবেষকরা। ইনস্টাগ্রামের ২০১৬ সংস্করণের অ্যাপে নিরাপত্তা ত্রুটিটি ছিল। যারা সাম্প্রতিক আপডেট সংস্করণ ব্যবহার করছেন, তাদের তথ্য চুরি করতে পারেনি হ্যাকাররা।

 

– সিনিউজভয়েস ডেস্ক

Please Share This Post.