ট্রেনের টিকেট কাটার সুবিধা আনল রবি

 

সহজে ও স্বাচ্ছন্দে ট্রেনের টিকেট কাটার জন্য সম্প্রতি মোবাইল ফোনভিত্তিক ট্রেন টিকেটিং সল্যুশন চালু করেছে দেশের জনপ্রিয় মোবাইল অপারেটর রবি। টিকেটিং প্লাটফরম বিডিটিকেটস ডটকমের পোর্টফোলিওতে এই সেবাটি একটি নতুন সংযোজন। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ায় এ সুবিধা অন্যতম ভূমিকা রাখবে বলে রবি’র বিশ্বাস।

সাধারণত ট্রেনের টিকেট কেনা একটি ঝক্কি-ঝামেলার বিষয়। টিকেট কাটতে গিয়ে বিশেষ করে লম্বা লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা একটি সাধারণ চিত্র হয়ে দাঁড়িয়েছে। রবি’র ট্রেন টিকেট সল্যুশনটি অতি শিগগিরই এ সমস্যার সমাধান করবে বলে আশা করা হচ্ছে।

রবি গ্রাহকদের প্রথমে মোবাইল ফোন থেকে *১৩১# লিখে ডায়াল করে টিকেট বুক করতে হবে। এরপর একটি সহজ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে গ্রাহকের কাছ থেকে যাত্রার তারিখ, কোন স্টেশন থেকে যাত্রা করবেন, কোন স্টেশন তার গন্তব্য, কোন ট্রেনে যাবেন, কোন শ্রেণী ও কোন সিটটি তিনি কিনতে ইচ্ছুক এসব তথ্য জানতে চাওয়া হবে।

টিকেট বুকিং প্রক্রিয়া শেষে বুকিং কোডসহ একটি এসএমএস গ্রাহক সাথে সাথে পাবেন যাতে টিকেটটি কেনার জন্য কত টাকা লাগবে তাও উল্লেখ থাকবে। এসএসএসটি গ্রহণ করার ৩০ মিনিটের মধ্যে দেশজুড়ে ররি’র ৬ হাজার ৫০০টি ক্যাশ পয়েন্টের যে কোনোটিতে টিকেটের মূল্য পরিশোধ করতে হবে।

মূল্য পরিশোধ করার পর গ্রাহক এসএমএসে একটি ই-টিকেট নাম্বার পাবেন। এই ই-টিকেটটি রেল স্টেশনের কম্পিউটার কাউন্টারে দেখিয়ে গ্রাহকদের প্রচলিত ট্রেন টিকেট সংগ্রহ করতে হবে। ট্রেন ছাড়ার ১ ঘণ্টা আগে টিকেটটি সংগ্রহ করতে অনুরোধ করা হয়েছে।

প্রতি সিটের টিকেটের জন্য ২০ টাকা সার্ভিস চার্জ প্রদান করতে হবে। মোবাইল-ভিত্তিক ট্রেন টিকেটিং সলিউশনটির মাধ্যমে সপ্তাহের সাত দিনই সকাল ৯টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত টিকেট কেনা যাবে। যাত্রার সর্বোচ্চ ৫দিন আগে থেকে টিকেট কেনার সুযোগ পাবেন গ্রাহকগণ। কিন্তু টিকেটটি হস্তান্তরযোগ্য নয় এবং একটি নম্বর থেকে মাসে সর্বোচ্চ দুইবার লেনদেন করা যাবে।

 

 

সিনিউজভয়েস ডেস্ক

Please Share This Post.