টেলিফোন সুইচ নির্মাতা থেকে শীর্ষ মোবাইল ফোন প্রস্তুতকারী হুয়াওয়ে!

১৯৮৭ সাল। চীনের লিবারেশন আর্মি থেকে সদ্য অবসর নিয়েছেন ৪০ বছর বয়সী রেন ঝেংফেই। অবসরের পর ছোট পরিসরে প্রতিষ্ঠা করলেন একটি প্রযুক্তি কোম্পানি। নাম দিলেন ‘হুয়াওয়ে’। এখানে উৎপাদিত হতে লাগলো টেলিফোনের সুইচ। আজ থেকে ৩২ বছর আগের ছোট্ট এ উদ্যোগ ধীরে ধীরে সমার্থক হলো সফলতার গল্পের, অনুপ্রেরণার।

সফলতার এ গল্পের প্রথম বড় চমকের দেখা মেলে ২৫ বছর পর ২০১২ সালে। এ বছরে টেলিকমিউনিকেশন ও নেটওয়ার্কিং ইকুপমেন্ট ব্যবসায় বিশ্বের বৃহৎ প্রযুক্তি নির্মাণ প্রতিষ্ঠান এরিকসনকে টপকে এক ধাপ উপরে ওঠে হুয়াওয়ে। এরপরের সফলতার গল্পগুলো আরও ধারাবাহিক।  ২০১৮ সালে শীর্ষ স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান অ্যাপলকে স্মার্টফোন বিক্রয়ে ছাড়িয়ে যায় রেন ঝেংফেইয়ের হুয়াওয়ে। সে বছরই ২০০ মিলিয়ন স্মার্টফোন বাজারে ছেড়ে মাইলফলক ছোঁয় প্রতিষ্ঠানটি।

নিরবচ্ছিন্ন এ সফলতার পেছনের গল্প কি? সহজাত এ প্রশ্নের উত্তর দিয়েছে বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান ইপসস। তারা বলছে, হুয়াওয়ে গ্রাহকদের মন জয় করে সুপ্রতিষ্ঠিত ব্র্যান্ড হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে বিশ^বাজারে। প্রতিষ্ঠানটির সময়োপযোগী প্রযুক্তি দ্রুত মানুষের আস্থা অর্জন করেছে।

পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ২০১০ সালে বিশ্ববাজারে হুয়াওয়ের মোবাইল ফোন বিক্রি হয়েছিল ৩ মিলিয়ন। ২০১৮ সালে এসে সে সংখ্যা দাঁড়ায় ২০০ মিলিয়নে। অংকের হিসাবে মাত্র আট বছরে প্রতিষ্ঠানটির প্রবৃদ্ধি হয়েছে ৬৬ গুণ। ফলে বিশ্বের ১৭০টি দেশের ৫০০ মিলিয়ন লোক আস্থা রেখেছে হুয়াওয়ের স্মার্টফোনে।

হুয়াওয়ের কনজ্যুমার বিজনেস গ্রুপ জানায়, বিশ্ব ব্যাপী গ্রাহকদের কাছ থেকে পি-২০, মেট-২০ সিরিজ এবং অনার স্মার্টফোনের ব্যাপক চাহিদার কারণে নতুন রেকর্ড ছুঁতে পেরেছেন তারা। প্রফেশনাল ফটোগ্রাফির জন্য যুঁতসই পি-২০ সিরিজের ফোন বাজারে ছেড়ে বিশ্বজুড়ে ব্যাপক সাড়া ফেলে। এর খুব অল্প সময়ের মধ্যে ১৬ মিলিয়ন পি-২০ সিরিজের স্মার্টফোন বাজারজাত করে প্রতিষ্ঠানটি।

টেলিফোন সুইচ নির্মাতা থেকে শীর্ষ মোবাইল ফোন প্রস্তুতকারী হুয়াওয়ে!

হুয়াওয়ের আর এক চমক মেট ২০ সিরিজ ফোন বাজারজাত করা হয় গত অক্টোবরে। ফোনটিতে ব্যবহার করা হয়েছে সবচেয়ে আধুনিক প্রযুক্তি। বাজারে ছাড়ার দুই মাসের মধ্যেই ৫ মিলিয়নের বেশি মেট ২০ সিরিজের স্মার্টফোন বিক্রয় করে প্রতিষ্ঠানটি। এখনও এর চাহিদা তুঙ্গে।

এছাড়াও তরুণদের মাঝে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে হুয়াওয়ের নোভা সিরিজের স্মার্টফোন। গত বছরের শেষ পর্যন্ত ৬৫ মিলিয়ন নোভা সিরিজের স্মার্টফোন বাজারজাত করে হুয়াওয়ে। মাঝারি বাজেটের মধ্যে বিশ্বজুড়ে এখনও শীর্ষে অবস্থান করছে নোভা সিরিজের এ স্মার্টফোনগুলো।

হুয়াওয়ের ভবিষ্যত কর্মপরিকল্পনা সম্পর্কে কনজ্যুমার বিজনেস গ্রুপের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রিচার্ড ইউ বলেন, গ্রাহকদের কথা চিন্তা করে ভবিষ্যতে আরও ‘গ্রাহক-কেন্দ্রিক’ সুবিধা দিতে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ থাকবে হুয়াওয়ে। স্মার্টফোন শিল্পের বৈপ্লবিক পরিবর্তনের জন্য অব্যাহতভাবে কাজ করা হবে।

-সিনিউজভয়েসডেক্স

Please Share This Post.