টাইমস হায়ার এডুকেশন ইউনিভার্সিটি ইম্প্যাক্ট র‌্যাংকি এ ডিআইইউ

টাইমস হায়ার এডুকেশন (টিএইচই) ইউনিভার্সিটি ইম্প্যাক্ট র‌্যাংকিং ২০১৯ এ ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি মর্যাদাপূর্ণ অবস্থান অর্জন করেছে। জাতিসংঘ ঘোষিত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে গুরুত্বপূর্ন অবদানের উপর ভিত্তি করে এ র‌্যাংকিং করা হয়। গত বুধার (৩ এপ্রিল) টাইমস হায়ার এডুকেশন এর ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ২০১৯ সালের ইউনিভার্সিটি ইম্প্যাক্ট র‌্যাংকিং ২০১৯ এ তালিকায় দেখা যায়, এবারের গ্লোবাল র‌্যাংকিং এ বাংলাদেশের পাবলিক এবং প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় মিলিয়ে একমাত্র ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির অবস্থান শীর্ষ ৩০০ এর মধ্যে উঠে এসেছে।

একটি নবীন বিশ্ববিদ্যালয় (২০০২ সালে প্রতিষ্ঠিত) হিসেবে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির এ এক অনন্য অর্জন। ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশের একমাত্র বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে একইসাথে বিশ্বব্যাপী সর্বাধিক গ্রহণযোগ্য ও স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় র‌্যাংকিংয়ের তিনটি প্রতিষ্ঠান টাইমস হায়ার এডুকেশন, কিউ এস এবং ইউ আই গ্রীনম্যাট্টিক্স এর বিচারে মর্যাদাপূর্ন অবস্থান লাভ করার গৌরব অর্জন করছে।

টাইমস হায়ার এডুকেশন  হচ্ছে আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত বিশ্বব্যাপী বিশ্ববিদ্যালয় সমূহের মূল্যায়নকারী কর্তৃপক্ষ ও উচ্চশিক্ষার তথ্য প্রদানকারী শীর্ষস্থানীয় প্রতিষ্ঠান। ’টাইমস হায়ার এডুকেশন ইউনিভার্সিটি ইম্প্যাক্ট র‌্যাংকিং ২০১৯’ হচ্ছে জাতিসংঘ ঘোষিত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে বিশ্বব্যাপী বিশ্ববিদ্যালয় সমুহের গুরুত্বপূর্ন সামাজিক ও অর্থনৈতিক অবদানের উপর ভিত্তি করে বিশ্বসেরা বিশ্ববিদ্যালয় সমূহের র‌্যাংকিংয়ের প্রথম পদক্ষেপ। আর এ র‌্যাংকিং এ ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির মযার্দাপূর্ন অবস্থান শুধু ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনভিার্সিটির জন্য গৌরবোজ্জ্বল নয়, বাংলাদেশের জন্যও গৌরবের বিষয়। এ অবস্থান শুধু ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির বৈশ্বিক প্রবর্তক হিসেবে শিক্ষা, গবেষণা ও জ্ঞান বিস্তারে জাতিসংঘ ঘোষিত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের প্রতিশ্রুতি পূরনের মধ্যে সীমাবদ্ধ নয় বরং বিশ্ববিদ্যালয়ের অভন্তরীন কর্মকান্ড পরিচালনার নিয়মিত চর্চা, কর্মপন্থা ও কার্যপ্রণালীর যথার্থতা প্রমানের মূর্ত প্রকাশও।

এ মর্যাদাপূর্ন অবস্থানকে অবিস্মরণীয় করে রাখার লক্ষ্যে গত ৪ এপ্রিল (বৃহস্পতিবার) বিশ্ববিদ্যালয়ের ৭১ মিলনায়তনে এক ’বিশেষ উদযাপন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্বদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. ইউসুফ এম ইসলাম। বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিচালক (গবেষণা) অধ্যাপক ড. কবিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপ-উপাচার্য প্রফেসর ড. এস এম মাহাবুব-উল হক মজুমদার, রেজিস্ট্রার প্রফেসর ড. প্রকৌশলী এক এম ফজলুল হক সহ বিভিন্নঅনুষদের ডীন, বিভাগীয় প্রধান, শিক্ষক, প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও শিক্ষার্থীবৃন্দ।

-সিনিউজভয়েস/জিডিটি/৭এপি/১৯

Please Share This Post.