জমে উঠেছে ‘বিসিএস ডিজিটাল এক্সপো বরিশাল ২০১৭’

বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতি (বিসিএস) বরিশাল শাখার উদ্যোগে, বরিশাল শহরের একে ইনস্টিটিউশন প্রাঙ্গনে ১১ জানুয়ারি থেকে শুরু হয়েছে পাঁচ দিনব্যাপী ‘বিসিএস ডিজিটাল এক্সপো বরিশাল ২০১৭’ শীর্ষক প্রযুক্তি পণ্যের মেলা।

তথ্যপ্রযুক্তির দেশী-বিদেশী জনপ্রিয় ও সুপরিচিত ব্র্যান্ড, আমদানিকারক, প্রস্তুতকারক ও সরবরাহকারী এবং স্থানীয় ৪০টি প্রতিষ্ঠান এ প্রদর্শনীতে অংশগ্রহণ করেছে। এতে তারা মূলত কম্পিউটার হার্ডওয়্যার ও সফটওয়্যার পণ্যসামগ্রী, নেটওয়ার্ক ও ডাটা কমিউনিকেশন, টেলিকম সেবা ও পণ্যসামগ্রী, মাল্টিমিডিয়া, আইসিটি শিক্ষা উপকরণ, ল্যাপটপ, পামটপ, ডিজিটাল জীবনধারাভিত্তিক প্রযুক্তি ও পণ্য ইত্যাদির উন্নত ও হালনাগাদ সংস্করণ প্রদর্শন করছে। প্রায় ২০,০০০ বর্গফুট স্থান জুড়ে ৬০ টি স্টল এবং ৬টি প্যাভেলিয়নে এসব প্রযুক্তি সামগ্রী প্রদর্শিত হচ্ছে।

বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান দিচ্ছে আকর্ষণীয় নানা অফার। মেলায় ডেল এর ল্যাপটপের সঙ্গে সাউন্ডবক্স ও ৫০০ টাকার প্রাইজবন্ড। স্যামসাং এর যেকোনো পণ্যের সাথে একটি আকর্ষণীয় মগ। এসারের ল্যাপটপে পাওয়া যাবে জ্যাকেট ও ব্যাগ। এইচপির ল্যাপটপেও পাওয়া যাবে জ্যাকেট। এভিরা এন্টিভাইরাসে ৫০ % ডিসকাউন্ট ও টি শার্ট। পান্ডার অ্যান্টিভাইরাসে স্পিকার বা ব্যাগ। লেনোভোর প্রডাক্টে রাউডার।

প্রদর্শনীতে গেমিং জোনে ভার্চুয়াল ক্রীড়ায় মেতে উঠছে শিশুরা। পুরো মেলা প্রাঙ্গনেই রয়েছে ফ্রি ওয়াই-ফাই সুবিধা আর ইন্টারনেট ব্রাউজিং কর্নারে দর্শনার্থীরা সুযোগ পাচ্ছেন উচ্চ-গতির ইন্টারনেট বিনামূল্যে ব্যবহারের।

১১ জানুয়ারি মেলার উদ্বোধন করেন বরিশাল-২ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট তালুকদার মোহাম্মদ ইউনুস। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য তিনি বলেন, ‘বারাকা ওবামাও দেশকে ডিজিটাল করার ক্ষেত্রে বাংলাদেশকে অনুসরণ করতে বলেছেন। সারা পৃথিবীর জন্য ডিজিটাল বাংলাদেশ আজ রোল মডেল। ডিজিটাল বাংলাদেশের সঙ্গে তাল মিলিয়ে নদীবেষ্টিত বরিশাল হবে স্মার্ট বরিশাল।’

তিনি আরো বলেন,‘শিশুরা প্রযুক্তিতে বড়দের চেয়ে এগিয়ে। প্রযুক্তির জয় এখন পুরো পৃথিবীতে। মানুষের পরিবর্তে রোবট ব্যবহৃত হচ্ছে উন্নত বিশ্বে। একসময় সহধর্মিণীর ঘরের কার্যাবলীকে সহজ করতে রোবটের দেখা মিলবে আমাদের দেশেও।’

bcs1

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বরিশালের জেলা প্রশাসক ড. গাজি মো. সাইফুজ্জামান, বিএমপির পুলিশ কমিশনার এস এম রুহুল আমীন, বরিশাল চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজের সভাপতি সাইদুর রহমান রিন্টু, বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতি’র(বিসিএস) যুগ্ম মহাসচিব নাজমুল আলম ভূঁইয়া (জুয়েল), বিসিএস এর প্রাক্তন সভাপতি এস.এম ইকবাল, আছমত আলী খান ইনস্টিটিউশনের (এ কে স্কুল) সভাপতি সৈয়দ গোলাম মাসুদ বাবলু এবং স্মার্ট টেকনোলজিস বিডি লিমিটেডের জেনারেল ম্যানেজার মুজাহিদ আল বিরুনি সুজন।

বরিশালের জেলা প্রশাসক ড. গাজি মো. সাইফুজ্জামান বলেন, ‘বাংলাদেশ বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে প্রযুক্তিতে এগিয়ে যাচ্ছে। উন্নতমানের প্রযুক্তির পথিকৃৎ হতে বরিশাল পরিণত হবে সিলিকন ভ্যালিতে।’

বিএমপির পুলিশ কমিশনার এস এম রুহুল আমীন বলেন, ‘পূর্বের নেতৃত্বের চেয়ে বর্তমান বাংলাদেশ সরকারের সুযোগ্য নেতৃত্ব দেশকে প্রযুক্তিতে অনেক বেশি অগ্রসর করেছে। প্রযুক্তির এই আলো রাজধানী ছেড়ে গ্রামাঞ্চলেও ছড়িয়ে পরেছে। তথ্যপ্রযুক্তি সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে দিতে প্রদর্শনীর ভূমিকা অপরিসীম। এই এক্সপো বরিশালের মানুষের জন্য আশির্বাদ স্বরুপ।’

বিসিএস যুগ্ম মহাসচিব নাজমুল আলম ভূঁইয়া (জুয়েল) বলেন, ‘পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত আমাদের অনুসরণ করে তাদের দেশকে পরিণত করছে ডিজিটাল ভারতে। ডিজিটাল বাংলাদেশে নিত্যনতুন প্রযুক্তি সম্পর্কে সাধারণ মানুষকে জানাতে বিসিএস বরিশাল শাখা আয়োজন করেছে এই জাঁকজমকপূর্ণ প্রদর্শনীর। মেলায় উপস্থাপন করা প্রযুক্তি থেকে উপকৃত হবে বরিশালের শিক্ষার্থী থেকে শুরু করে সাধারণ জনগণ। বরিশালকে স্মার্ট সিটি করতে বিসিএস বরিশালকে সব ধরনের সহযোগিতা প্রদান করবে।’

১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত এই বর্ণিল ও শিক্ষামূলক প্রদর্শনী চলবে। মেলার প্রবেশ মূল্য ১০ টাকা। শিক্ষার্থীরা পরিচয়পত্র প্রদর্শন পূর্বক মেলায় বিনা মূল্যে প্রবেশ করতে পারবে।

মেলার প্লাটিনাম স্পন্সর এইচপি, ডেল, এসার ও স্যামসাং; গোল্ড স্পন্সর আসুস এবং ব্রাদার; সিলভার স্পন্সর সিসনোভা, টিপি লিঙ্ক এবং হাইকভিশন। প্রদর্শনীতে গেমিং প্রতিযোগিতার স্পন্সর হিসেবে রয়েছে আসুস।

 

– সিনিউজভয়েস ডেস্ক

Please Share This Post.