চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে বিশ্বমানের আইটি পার্ক করবে হাই-টেক পার্ক

বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের উদ্যোগে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে নির্মিত হবে ‘চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় আইটি পার্ক’। আজ বুধবার (২২ মে, ২০১৯) বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের সভাকক্ষে এই মর্মে একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর হয়। বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের পক্ষে এই সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন ব্যবস্থাপনা পরিচালক (সচিব)  হোসনে আরা বেগম এনডিসি এবং চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে উপাচার্য ড. ইফতেখার উদ্দীন চৌধুরী।

এই সমঝোতার আওতায় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ১০০ একর জমি আইটি পার্ক স্থাপনের জন্য বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষকে প্রদান করবে। বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের পরিচালক (যুগ্ম-সচিব) ড. খন্দকার আজিজুল ইসলাম  বলেন,  দেশের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে আইটি/আইটিইএস শিল্পের বিকাশে এবং কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়কে বেছে নিয়েছে। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাধারণ ও কারিগরী শিক্ষার পাশাপাশি গবেষণা ক্ষেত্রেও উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রাখছে। এই অঞ্চলে উচ্চ-প্রযুক্তির বিকাশে এই আইটি পার্ক ভুমিকা রাখতে পারবে বলে আমরা মনে করি।

চট্টগ্রাম অঞ্চলে জ্ঞানভিত্তিক অর্থনীতি গড়ে তোলার লক্ষ্যে এই আইটি পার্কে বিশেষ করে সফটওয়্যার শিল্পের উপর গুরুত্বারোপ করা হবে। এছাড়াও এই আইটি পার্কে হার্ডওয়্যার, আইটি সার্ভিস এবং হার্ডওয়্যার নিয়েও কাজ করা হবে। আইটি পার্ক স্থাপনের লক্ষ্যে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় তাদের নিজস্ব ক্যাম্পাসে ১০০ একর জমি বিনামূল্যে বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষকে প্রদান করবে। নির্মাণ কাজ শেষে এর কার্যক্রম পরিচালনা করা হবে বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষ, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, পার্কে বিনিয়োগকারীগণ, আইটি প্রতিষ্ঠান এবং স্থানীয় প্রশাসনের প্রতিনিধিদের মাধ্যমে গঠিত স্টিয়ারিং কমিটি। এই পার্ক থেকে অর্জিত রাজস্ব আইটি পার্কের ব্যবস্থাপনা, গবেষণা এবং ইনকিউবেশনে ব্যবহৃত হবে।

সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের কর্মকর্তা ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

-সিনিউজভয়েস/জিডিটি/মে২২/১৯

Please Share This Post.