গ্রাহক চাহিদার প্রতিফলন ঘটিয়ে স্মার্টফোন উদ্ভাবন করে অপো

বিগত ১০ বছর ধরে, অপো ক্যামেরা নির্ভর ফোন তৈরির পাশাপাশি যুগান্তকারী ফটোগ্রাফি টেকনোলজির উদ্ভাবন চালিয়ে যাচ্ছে। অপোর হাত ধরেই সেলফি বিউটিফিকেশন এর যুগ শুরু হয় এবং অপোই প্রথম ৫ মেগাপিক্সেল ও ১৬ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা সহ স্মার্টফোন উন্মোচন করে। অপোই প্রথম ব্র্যান্ড যে বাজারে মটোরাইজড রোটেটিং ক্যামেরা, আল্ট্রা এইচডি ফিচার এবং ৫x ডুয়াল ক্যামেরা টেকনোলজি পরিচয় করিয়ে দেয়। সারা বিশ্ব জুড়ে অপো তরুণ প্রজন্ম সহ আরও অনেক ক্রেতাকে চমকপ্রদ স্মার্টফোন ফটোগ্রাফির অভিজ্ঞতা প্রদান করে যাচ্ছে।

যখন মোবাইল ফোন প্রথম বাজারে আসে তখন শুধুমাত্র কল করার উদ্দেশ্যেই ব্যবহার করা হত । যুগের পরিবর্তনের সাথে সাথে ক্রেতাদের চাহিদারও বিপুল পরিবর্তন ঘটে। শুরুতে মোবাইল ফোনের আকৃতি তার ডিসপ্লের তলনায় বেশ কিছুটা বড় ছিল, কিন্তু কালের বিবর্তনে চাহিদার কারণে ফোনের আকৃতি ছোট হয়ে আসে এবং সেই সাথে নতুন নতুন ফিচার সংযুক্ত হতে থাকে।

ভিডিও লিংকটা থেকে দেখতে পারবেন অপো ফ্যাক্টরি ভিজিট করার অভিজ্ঞতা:

আজকে গ্রাহকেরা তাদের ফোনকে একটি অল-ইন-ওয়ান মাল্টিমিডিয়া ডিভাইস হিসাবে ব্যাবহার করে থাকে। ছবি তোলা, ভিডিও করা থেকে শুরু করে তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ও ওয়েবসাইট এ প্রকাশ করার জন্য গ্রাহকেরা ফোন আগের তুলনায় অনেক বেশী ব্যবহার করছে। এমনকি কিছু কিছু ক্রেতা তাদের ব্রাউজ, রিসার্চ এবং কেনাকাটার জন্য ডেস্কটপ ও ল্যাপটপ পরিহার করে তা ফোনেই সম্পন্ন করছে। গ্রাহকদের প্রয়োজন ও চাহিদার ভিন্নতার কারণে স্মার্টফোন বাজার বিভিন্ন শ্রেণীতে বিভক্ত। কারো প্রয়োজন বিশাল ব্যাটারি তো কারো বড় ডিসপ্লে বা ভাল ক্যামেরা অথবা দ্রুত প্রোসেসিং পাওয়ার। এখন মূলত স্মার্টফোন ছবি তোলা, গেম খেলা, ইমেইল করা, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহার সহ ইত্যাদি বিভিন্ন কাজে ব্যবহার হয়ে থাকে। অপো সর্বদাই  ক্রেতাদের চাহিদার প্রতিফলন ঘটিয়েই বাজারে পন্য নিয়ে আসে।

ব্যবহারকারীদের প্রয়োজন ও চাহিদার ভিত্তিতে বিভিন্ন সিরিজের অপোর স্মার্টফোন বাজারে বিদ্যমান আছে, যেমন, অপো এ সিরিজ, অপো এফ সিরিজ, অপো আর সিরিজ এবং অপো ফাইন্ড সিরিজ। প্রতিটি সিরিজের রয়েছে বিশেষ কিছু আকর্ষণীয় বৈশিষ্ট্য, যা বাজারে বিদ্যমান প্রতিটি ক্রেতা শ্রেণীকে আকর্ষিত করে। যেমন অপো ফাইন্ড এক্স সিরিজের বিশেষ আকর্ষণ হলো তার ডিজাইন, যা তাকে আলাদা  করে তোলে আর দশটি সাধারন স্মার্ট  ফোনের থেকে। এর  অন্যান্য বিশেষ বৈশিষ্ট্যর মধ্যে আরও রয়েছে পপ আপ ক্যামেরা এবং ফুল ভিউ ডিসপ্লে। অপো সিরিজ গুলোর মাঝে অপো এফ সিরিজ হল সেলফি বিশেষায়িত সিরিজ। অন্যদিকে অপো আর সিরিজের বিশেষত্ব হল তুলনামূলক কম দামে দারুন সব ফিচার। আবার অপো এ সিরিজ বাজারে সেরা বাজেটের স্মার্টফোন গুলোর জন্য বিশেষ ভাবে পরিচিত।

Oppo

এগুলো ছাড়াও অপো বাজারে নিয়ে এসেছে কিছু সীমিত সংখ্যক স্মার্টফোন এডিশন (ফাইন্ড এক্স ল্যাম্বরগিনি এডিশন, অপো এফসি বারসেলোনা এডিশন- ইত্যাদি)।

অপো স্মার্টফোন দুটি ভিন্ন ধরণের দর্শন নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে, একদিকে অপোর রিসার্চ ও ডেভেলপমেন্ট টিম অভিনব সব টেকনলোজি উদ্ভাবন করে চলেছে অন্যদিকে অপো গ্রাহকদের চাহিদা প্রতিনিয়ত পূরণ করতে সচেষ্ট থাকছে। অপো গ্রাহকদের পরিবর্তনশীল চাহিদা সর্বদা পূরণ করতে বিভিন্ন ফিচার ও উন্নত প্রযুক্তি গ্রাহকদের হাতের নাগালে এনে দিয়েছে। এর মধ্যে আর্টিফিশিয়াল সেলফি ক্যামেরা, আকর্ষণীয় ডিজাইন ও VOOC ফ্ল্যাশ চার্জিং টেকনলোজি অন্যতম।

-গোলাম দাস্তগীর তৌহিদ
Please Share This Post.