গিগাবাইট জেড৩৯০ মডেলের গেমিং মাদারবোর্ড

বর্তমান বাজারে গিগাবাইটের জেড৩৯০ সর্বশেষ প্রজন্মের একটি অন্যতম শক্তিশালী ইন্টেল ভিত্তিক মাদারবোর্ড। মাদারবোর্ডটি ৯ম এবং ৮ম জেনারেশনের যে কোন ইন্টেল প্রসেসর সমর্থন করে। এর ক্যাশ সাইজ হচ্ছে এল ৩। মাদারবোর্ডটিতে রয়েছে ৪ টি র‌্যাম (জঅগ) স্লট এবং এর প্রত্যেকটি স্লট ডুয়াল চ্যানেল মেমোরি আর্কিটেকচার যুক্ত। সর্বোচ্চ ১২৮ জিবি পর্যন্ত ডিডিআর৪ র‌্যাম ব্যবহারের সুযোগ সহ এতে থাকছে ওভার ক্লকিং এর বিশেষ সুবিধা। র‌্যাম গুলোর সর্বোচ্চ বাস স্পীড ৪৪০০ মেগাহার্জ পর্যন্ত।

অন-বোর্ড গ্রাফিক্স কার্ডে থাকছে ইন্টেল এইচডি গ্রাফিক্স প্রসেসর যেখানে সর্বোচ্চ ১ জিবি পর্যন্ত মেমোরি শেয়ার করা যাবে। এই বোর্ডে রয়েছে ১টি এইচডিএমআই পোর্ট যার রিফ্রেশ রেট ৩০ হার্জ । অডিও কার্ড হিসেবে থাকছে রিয়েলটেক এর এলসি১২২০-ভিবি কোডেক যেটি হাই ডেফিনিশন অডিও সাউন্ড প্রদান করতে সক্ষম ।

সিএফএস স্পিড বৈশিষ্ট্যযুক্ত মাদারবোর্ডটিতে থাকছে ইন্টেল জিবিই ল্যান। এটি একটি ট্র্যাফিক ম্যানেজমেন্ট অ্যাপ্লিকেশন যেটি নেটওয়ার্ক জ্যাম যুক্ত পরিস্থিতিতে ভাল কাজ করার প্রতিক্রিয়ার জন্য নেটওয়ার্ক ল্যাটেন্সিকে আরও উন্নত করবে এবং কম পিং সময বজায় রাখবে। তাছাড়া ১০/১০০/১০০০ মেগাবিট সমর্থিত ওয়্যারলেস কমিউনিকেশন মডিউল এ থাকছে ৮০২.১১ এসি এবং ১১ এসি। এর স্পিড রেট ১৬০ মেগা হার্জ এবং এতে রয়েছে ১.৭৩ গিগাবিট পার সেকেন্ড ডাটা ট্রান্সফারের সুবিধা। আরও থাকছে ২.৪ এবং ৫ গিগাহার্জের ডুয়াল ব্যান্ড স্পিড।

মাদারবোর্ডটিতে থাকছে মাল্টি গ্রাফিক্স টেকনোলজি তথা আপনি যে জিপিউ ইন্সটল করুন না কেন সেই জিপিউ এর ফিচারটি এতে ব্যবহার করতে পারবেন। এই মাদারবোর্ডের স্টোরেজ ইন্টারফেস হিসাবে থাকছে ৩টি এম ডট টু কানেক্টর যার প্রত্যেকটিতে এসএসডি সাপোর্ট সহ তিন ধরনের এম ডট টু এম, এম ডট টু এ এবং এম ডট টু পি ব্যবহার করা যাবে। এছাড়াও থাকছে ৬টি সাটা কানেক্টর।

মাদারবোর্ডটি আরও থাকছে টাচ হিট পাইপ, মাল্টিকাট হিট সিঙ্ক এবং ফিন্স আ্যরে যার কারণে গেমিং বা অন্য প্রোগ্রাম চলাকালে এই মাদারবোর্ডটি খুব একটা বেশি গরম হবে না। যেহেতু এটি একটি গেমিং মাদারবোর্ড সেহেতু এটিতে থাকছে আরজিবি ফিউশন ২.০। এটি থাকার কারনে যেকোনো ইউজার তার পিসি থেকে ১১টি ফাংশনে আরজিবিটি কন্ট্রোল করতে পারবে গিগাবাইট এর ইউজার ইন্টারফেস থেকে। বিশেষ সুবিধাতে থাকছে অ্যাপ কানেক্টর, আটো গ্রীন, ইজি টিউন, ফাস্ট বুট, গেম বুস্টার, স্মার্ট ব্যাকআপ এবং ইউএসবি ব্লকার। সর্বশেষ সিস্টেম ইনফর্মেশন ভিউয়ার হার্ড ওয়্যার মনিটরিং এর ক্ষেত্রে যেকোনো ইউজার দেখতে পারবে ভোল্টেজ ডিটেকশন, টেম্পারেচার ডিটেকশন, ফ্যান স্পীড ডিটেকশন, ওয়াটার কুলিং ফ্লো রেট ডিটেকশন, ওভার হিটিং ইস্যু , ফ্যান স্পীড কন্ট্রোল এবং ফ্যান ফেইল ওয়ার্নিং।

গিগাবাইট তাদের এই মাদারবোর্ডে ব্যবহার করেছে ইউইএফআই বায়োস। ডুয়াল বায়োস হওয়ার কারনে আপনি চাইলে কুইক ফ্ল্যাশ এর মাধ্যমে সহজে পিসি বায়োস আপগ্রেড করতে পারবেন। তাছাড়া অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে এই মাদারবোর্ডটিতে ব্যবহার করতে হবে উইন্ডোজ ১০।

 

সিনিউজভয়েস/ডেক্স/২৮অক্টো./১৯

 

Please Share This Post.