এপলিটিকাল গ্লোবাল পাবলিক সার্ভিস অ্যাওয়ার্ড মনোনীত বাংলাদেশের দু’টি উদ্যোগ

‘এপটিক্যাল গ্লোবাল পাবলিক সার্ভিস অ্যাওয়ার্ড ২০১৯’ এ চূড়ান্ত পর্বের জন্য বাংলাদেশ থেকে মনোনীত হয়েছে এটুআই- এর ডিজিটাল সেবা ‘কলসেন্টার ৩৩৩’ এবং উদ্ভাবনী উদ্যোগ ‘আইল্যাব’।

এপটিক্যাল গ্লোবাল পাবলিক সার্ভিস অ্যাওয়ার্ড ২০১৯ সর্বমোট ৮টি ক্যাটাগরিতে পুরস্কার প্রদান করবে। এর মধ্যে ‘ডিজিটাইজিং পাবলিক সার্ভিসেস’ ক্যাটাগরিতে ‘কলসেন্টার ৩৩৩’ এবং ‘সিটিজেন-সেন্টার্ড ইনোভেশন’ ক্যাটাগরিতে ‘আইল্যাব’ মনোনীত হয়েছে। সরকারের নতুন উদ্ভাবনী সেবা চালু এবং পুরাতন সেবা সহজিকরণের মাধ্যমে নাগরিকদের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নে অবদান রাখার স্বীকৃতি হিসাবে সরকারের জন্য গ্লোবাল লার্নিং প্ল্যাটফর্ম নিয়ে কাজ করা যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংগঠন ‘এপলিটিকাল’ ২য় বারের মতো এবছর এপলিটিকাল গ্লোবাল পাবলিক সার্ভিস অ্যাওয়ার্ড ২০১৯ প্রদান করবে।

‘তথ্য ও সেবা সবসময়’ এই স্লোগানকে সামনে রেখে এটুআই-এর একক ভয়েস একসেস প্ল্যাটফর্ম ‘কলসেন্টার ৩৩৩’ চালু করা হয়েছে। ৩৩৩ নম্বরে কল করে যেকোনো নাগরিক সরকারি সেবাপ্রাপ্তির পদ্ধতি, জনপ্রতিনিধি ও সরকারি কর্মচারীদের সঙ্গে যোগাযোগের তথ্য, ইসলামিক মাসআলা-মাসায়েল, পর্যটন ও জেলা সম্পর্কিত তথ্য সম্পর্কে অবহিত হতে পারছেন এবং বিভিন্ন সামাজিক সমস্যার প্রতিকারে জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাগণকে অবহিত করতে পারছেন। এই কলসেন্টারের মাধ্যমে এ পর্যন্ত প্রায় ৩.৫ মিলিয়নের অধিক নাগরিককে সেবা প্রদান করা হয়েছে, এর মধ্যে ১৫,০০০ এর অধিক সামাজিক সমস্যা সমাধানসহ ৩৫০০ এর অধিক বাল্য বিবাহ রোধ করা হয়েছে। শহরের কেন্দ্র হতে প্রান্তিক জনগোষ্ঠী পর্যন্ত সকলের জন্য সরকারি তথ্য ও সেবার নিশ্চয়তা এবং সামাজিক অভিযোগের প্রতিকারের অবদানের জন্য ৩৩৩ এই বছর ‘বেস্ট সিটিজেন অ্যাঙ্গেজমেন্ট’ প্রজেক্ট হিসেবে ‘গভইনসাইডার ইনোভেশন অ্যাওয়ার্ড ২০১৯’ অর্জন করেছে।

এটুআই-এর আইল্যাব সমাজের বৃহত্তর সমস্যাগুলো মোকাবেলার জন্য প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে সারাদেশের উদ্ভাবকদের উদ্ভাবনগুলো অনুসন্ধান, পরিচর্যা এবং ত্বরান্বিত করে। আইল্যাব থেকে সরাসরি সহযোগিতা ও পরামর্শ প্রদানের মাধ্যমে ইতোমধ্যে ৬০টি ইনোভেশন প্রোটোটাইপকে উন্নত করা হয়েছে এবং এর মধ্যে বাণিজ্যিকীকরণ করা হয়েছে ১১টি।

এ বছর আটটি ক্যাটাগরিতে অস্ট্রেলিয়া, ইন্ডিয়া, যুক্তরাজ্য, কানাডা এবং ইন্দোনেশিয়া’সহ বিভিন্ন দেশ থেকে বিভিন্ন উদ্ভাবনী প্রকল্প প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। চূড়ান্ত পর্যায়ে বিজয়ী নির্ধারণে চলছে ভোট গ্রহণ প্রক্রিয়া। এই সম্মানজনক পুরস্কার অর্জন এবং ‘এপলিটিক্যাল গ্লোবাল পাবলিক সার্ভিস অ্যাওয়ার্ড ২০১৯’ এর চূড়ান্ত পর্বে বাংলাদেশকে জিতিয়ে দিতে প্রয়োজন মূল্যবান ভোট। ভোট প্রদানের শেষ দিন ৫ জানুয়ারি ২০২০। ভোট প্রদানের টিউটোরিয়াল দেখতে: https://bit.ly/36Z1OQD

৩৩৩ এবং আইল্যাব-কে ভোট দেয়ার ধাপ সমুহ : ১. ভিজিট করুন: https://apolitical.co/digitising-public-services-award-2019/. ২. লিংকে যাওয়ার পর স্ক্রল করে নীচে গিয়ে 333 এর পাশে Non-members: Sign up to vote-এ ক্লিক করুন। প্রয়োজনীয় তথ্য দিয়ে রেজিস্ট্রেশন কনফার্ম করুন। ৩. পূর্বের পেইজে যাওয়ার পর Members of Apolitical: Vote here-এ ক্লিক করুন। ৪. ইমেইল অ্যাড্রেস দেয়ার পর Digitising Public Services Award ক্যাটাগরিতে ক্লিক করুন। পরবর্তী পেইজে ‘333’, Access to Information (a2i), Bangladesh-কে ভোট প্রদান করুন। ৫. পুনরায় পূর্বের পেইজে গিয়ে ইমেইল অ্যাড্রেস দেয়ার পর Citizen-Centred Innovation Award ক্যাটাগরিতে ক্লিক করুন। পরবর্তী পেইজে iLab, Access to Information (a2i), Bangladesh-কে ভোট প্রদান করুন।

উল্লেখ্য যে, নানা উদ্ভাবনী আইডিয়ার মাধ্যমে জনগণের জন্য সরকারি-বেসরকারি সেবা সহজিকরণে এটুআই ইতোমধ্যেই জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক পর্যায়ে পরিচিতি লাভ করেছে; অর্জন করেছে ডব্লিউএসআইএস, এপিকটা, আইটেক্স’সহ নানান আন্তর্জাতিক সম্মাননা।

 

– সিনিউজভয়েস/জিডিটি/ডিসে.২৬/১৯

Please Share This Post.