ইউটিউবকে ১৭০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার জরিমানা

শিশুদের প্রাইভেসি সংক্রান্ত আইন ভঙ্গের কারণে ইউটিউবকে রেকর্ড পরিমাণ ১৭০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার জরিমানা করা হবে। যুক্তরাষ্ট্রের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফেডারেল ট্রেড কমিশন তথা এফটিসি এই জরিমানা আরোপ করেছে।

ভিডিও স্ট্রিমিং সাইট ইউটিউব-এর বিরুদ্ধে অভিযোগ হচ্ছে, এটি বাবা মায়ের অনুমতি ছাড়াই ১৩ বছরের কম বয়সী শিশুদের সম্পর্কিত ডাটা সংগ্রহ করেছে। এফটিসি জানিয়েছে, এই ডাটা শিশুদেরকে ট্রার্গেট করে বিজ্ঞাপন তৈরির জন্য ব্যবহৃত হয়েছে।

এটি যুক্তরাষ্ট্রের ১৯৯৮ সালের চিলড্রেনস অনলাইন প্রাইভেসি প্রটেকশন অ্যাক্ট তথা Coppa-র পরিপন্থী। এ বিসয়ে এফটিসির চেয়ারম্যান জো সিমন্স বলেছেন, এই আইন ভঙ্গের জন্য কোনোরকম অজুহাত দেয়ার সুযোগ নেই ইউটিউবের। তিনি আরও বলেন, গুগল (ইউটিউবের স্বত্ত্বাধিকারী সংস্থা) এ বিষয়টি অগ্রাহ্য করেছে যে, ইউটিউবের প্রধান সেবার একটি ইউটিউবের জরিমানা উল্লেখযোগ্য অংশ শিশুদের টার্গেট করে করা হয়েছে।অথছ বিজনেস ক্লায়েন্টদের কাছে তারা তাদের সেবাকে যেভাবে উপস্থাপন করেছে তাতে ভিন্ন একটি চিত্রই প্রতিফলিত হয়।

উদাহরণ হিসেবে এফটিসি বলছে, যেমন, ইউটিউব ঘোষণা করে থাকে, শীষস্থানীয় টিভি চ্যানেলগুলোর সাথে তুলনা করলে তারা হচ্ছে ৬ থেকে ১১ বছরের শিশুদের কাছে পৌঁছানোর সেরা মাধ্যম। এছাড়া ইউটিউব নিয়মিতভাবে তাদের পৃথক ইউটিউব কিডস অ্যাপে অন্তর্ভুক্তির জন্য কনটেন্ট রিভিউ করে থাকে।

-সিনিউজভয়েস/ডেক্স/১অক্টো./১৯

Please Share This Post.