আইসিটি ডিভিশনের অর্থায়নে ‘ই-শপ’ হচ্ছে ৬৪ জেলায়

গ্রামের সুবিধাবঞ্চিত মানুষটি যে পণ্য উৎপাদন করছে, সঠিক তথ্যের অভাবে সে দালাল আর মধ্য স্বত্ত্ব-ভোগীদের কবলে পড়ে ন্যায্য মূল্য পাচ্ছে না কিন্তু অপ্রয়োজনীয় ৬/৭ হাত বদলের ফলে ভোক্তা অধিক দামে সেই পণ্যটি কিনছে। ফলে, উৎপাদক ও ভোক্তা দু’জনই ঠকছে। এই সমস্যা দূর করতে আইসিটি বিভাগ সরকারি ই-কমার্স প্লাটফর্ম ‘ই-শপ’ কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। এর ফলে মধ্য-স্বত্ত্বভোগীদের দৌরাত্ব কমবে এবং উৎপাদকের ন্যায্যতা নিশ্চিত হবে,সঠিক দাম পাবে। আজ সকালে রাজধানীর তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ কর্তৃক আয়োজিত সরকারের ই-কমার্স প্লাটফর্ম ‘ই-শপ কর্মসূচি’র উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক এ কথা বলেন।

আইসিটি ডিভিশনের অর্থায়নে ও তত্ত্বাবধানে ফিউচার সলিউশন ফর বিজনেস (এফএসবি) লিমিটেড এই কর্মকান্ড পরিচালনা করবে। ৬ কোটি ৮০ লক্ষ টাকা ব্যায়ে আগামী ডিসেম্বরের মধ্যেই এই কর্মসূচি বাস্তবায়ন হবে। প্রান্তিক কৃষক, হস্তশিল্পী ও ক্ষুদ্র কুঠির শিল্পে কর্মরত ১,০০০ জন ব্যক্তিকে ৫ দিনের প্রশিক্ষণ দিয়ে ই-কমার্স পরিচালনার জন্য যোগ্য করে গড়ে তোলা হবে। এই কর্মসূচির মাধ্যমে দেশের ৬৪ জেলায় ৬৪ টি ই-শপ পরিচালনা করা হবে। পাশাপাশি দাম ও মানের গুণগত উৎকর্ষ সাধনে কেন্দ্রীয়ভাবে একটি হাবের মাধ্যমে এসব ই-শপের মধ্যে সমন্বয় সাধন করা হবে।

প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, চীনের জ্যাক মা কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত আলীবাবা মাত্র অল্প সময়ে বিশ্বের ১ নম্বর ই-কমার্স কোম্পানীতে পরিণত হয়েছে। আলীবাবা বর্তমানে ট্রিলিয়ন ডলার কোম্পানী। আমাদেরও উদ্যোক্তারা যথেষ্ট পরিশ্রমী ও মেধাবী। শেখ হাসিনার সরকারের তাদের সেই উদ্যোগে সহযোগিতাও করছে। দেশের ই-কমার্স উন্নয়নে ইতোমধ্যে বেশ কয়েকটি পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। ই-কমার্স খাতের জন্য একটি নীতিমালা প্রণয়ন করা হচ্ছে। অনলাইন পেমেন্ট বাড়ানোর জন্য বেশ কয়েকটি গেটওয়ে চালু হয়েছে। আন্তর্জাতিক কিছু গেটওয়ে কাজও করছে। ধীরে ধীরে আমাদের ই-কমার্স খাতের পরিসর বাড়ছে। তাই, আমি মেন করি, এক সময় ট্রিলিয়ন ডলারের ই-কমার্স কোম্পানী এই বাংলাদেশেই হবে।

e-shop2

বক্তব্য রাখছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক

কর্মসূচি পরিচালক মোঃ আকতার হোসেনের স্বাগত বক্তব্যের মাধ্যমে শুরু হওয়া এই অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন গাজী টেলিভিশন লিমিটেড-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক আমান আশরাফ ফায়েজ, সেন্টার ফর রিসার্স এন্ড ইনফরমেশন (সিআরআই)-এর নির্বাহী পরিচালক সাব্বির বিন শামস, ফিউচার সলিউশন ফর বিজনেস লিমিটেড-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক সাদেকা হাসান সেজুতি প্রমূখ। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন, রংপুর-২ এর সংসদ সদস্য আবুল কালাম মোঃ আহ্সানুল হক চৌধুরী, মেহেরপুর-মুজিব নগরের সংসদ সদস্য ফরহাদ হোসেন, আইসিটি বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মো: হারুনুর রশিদ, আইসিটি বিভাগের অতিরিক্ত সচিব পার্থ প্রতিম দেব, সুশান্ত কুমার সাহা, সিসিএ’র কন্ট্রোলার আবুল মানসুর মোহাম্মদ সার্ফ উদ্দিন প্রমূখ।

সিনিউজভয়েস/ডেক্স

Please Share This Post.