অগ্নিঝুঁকিতে লক্ষাধিক ল্যাপটপ ব্যাটারি প্রত্যাহার করবে এইচপি

এইচপি অগ্নিঝুঁকিতে থাকা তাদের বিভিন্ন সিরিজের ল্যাপটপের ব্যাটারি প্রত্যাহারের ঘোষণা দিয়েছে।

২০১৩ সালের মার্চ থেকে ২০১৬ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে বিশ্ববাজারে বিক্রয় করা ল্যাপটপগুলোর মধ্যে লক্ষাধিক ল্যাপটপের ব্যাটারি ক্রটিপূর্ণ হওয়ায় ল্যাপটপ গরম হয়ে আগুন ধরে যেতে পারে।

ক্রটির বিষয়টি নজরে আসায় ১ লাখ ১ হাজার ল্যাপটপের ব্যাটারি প্রত্যাহার করা হবে বলে এক ঘোষণায় জানিয়েছে এইচপি। যেসব সিরিজের ল্যাপটপ এর আওতাভুক্ত সেগুলো হচ্ছে- এইচপি, কমপ্যাক, এইচপি প্রোবুক, এইচপি এনভি, কমপ্যাক প্রেসারিও এবং এইচপি প্যাভিলিয়ন।

এইচপির এসব সিরিজের সব মডেল অগ্নিঝুঁকিতে নেই। বিশ্ব বাজারে বিক্রি হওয়া এসব সিরিজের ১ লাখ ১০ হাজার সংখ্যক ল্যাপটপ, প্যানাসনিক নির্মিত ক্রটিপূর্ণ ব্যাটারির কারণে ঝুঁকিতে রয়েছে। সুতরাং এর মধ্যে আপনার এইচপি ল্যাপটপটি অগ্নিঝুঁকিতে রয়েছে নাকি নিরাপদ, তা বুঝবেন কিভাবে?

ব্যবহারকারীদের সুবিধার্থে এইচপি কর্তৃপক্ষ একটি অনলাইন টুল (https://h30686.www3.hp.com) চালু করেছে যেখান থেকে ল্যাপটপের ব্যাটারি পরিবর্তন করা লাগবে কিনা তা সহজেই জানা যাবে। ক্রটিপূর্ণ দেখা গেলে নিরাপত্তার খাতিরে ল্যাপটপ থেকে ব্যাটারি সরিয়ে রাখার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। ক্রটিপূর্ণ ব্যাটারি বিনা মূল্যে বদলে দেবে এইচপি। সে পর্যন্ত ব্যাটারি ছাড়াও ল্যাপটপটি ব্যবহার করা যাবে এসি অ্যাডাপ্টারের মাধ্যমে।

 

– সিনিউজভয়েস ডেস্ক